ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজের ক্যাপস্টোন কোর্স টিমের সাথে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (কউক) মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

: নুরুল করিম রাসেল
প্রকাশ: ১১ মাস আগে

প্রেস রিলিজ :
ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজে (এনডিসি) এর ক্যাপস্টোন কোর্স টিমের সাথে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক) এর এক মতবিনিময় সভা গতকাল সন্ধ্যায় কউক মাল্টিপারপাস হলে অনুষ্ঠিত হয়। কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক) চেয়ারম্যান কমোডর মোহাম্মদ নুরুল আবছার, এনজিপি, এনডিসি, পিএসসি, বিএন (অব.) এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভায় এনডিসি কোর্স ফ্যাকাল্টি মেম্বার এসডিএস মেজর জেনারেল মো: রাশেদ আমিন, ওএসপি, আরসিডিএস, এনডিসি, পিএসসি (অব:) এর নেতৃত্বে ০৬ (ছয়) জন সংসদ সদস্য, সামরিক ও বেসামরিক উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাবৃন্দ, বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক, এফবিসিসিআই এর পরিচালকবৃন্দ সহ মোট ২৬ (ছাব্বিশ) সদস্যের ক্যাপস্টোন কোর্সের সদস্যবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন।
এ সময় কক্সবাজারকে একটি আন্তর্জাতিক মানের আধুনিক, পরিকল্পিত পর্যটন নগরী হিসেবে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে গৃহীত পরিকল্পনা ও চলমান কর্মকান্ড উপস্থাপন করেন কউক চেয়ারম্যান কমোডর মোহাম্মদ নুরুল আবছার। তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্ন বাস্তবায়নে এবং কক্সবাজারকে একটি নিরাপদ, আধুনিক ও পরিকল্পিত নগরী হিসেবে রূপ দিতে সর্বমহলের সর্বাত্মক সহযোগিতা প্রয়োজন। ইতিমধ্যে কক্সবাজার জেলার মহা-পরিকল্পনা তৈরির কাজ শুরু হয়েছে। আমি কক্সবাজারের সন্তান, সেই হিসেবে কক্সবাজারের প্রতিটা উপজেলা আমার চেনাজানা। তাই মহাপরিকল্পনা এবং ইমারত নির্মাণ বিধিমালা অনুযায়ী পরিকল্পিতভাবে পর্যটনবান্ধব কক্সবাজার জেলা গঠনের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছি। বাংলাদেশ সরকারের “স্মার্ট বাংলাদেশ” ভিশন অনুযায়ী কউক কক্সবাজারকে স্মার্ট সিটি হিসেবে গড়ে তুলতে অঙ্গীকারবদ্ধ বলে তিনি সভায় জানান।
প্রতিনিধিদলের সদস্যবৃন্দ তাদের আলোচনায় কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান এর দুরদর্শী চিন্তা ভাবনা এবং কক্সবাজারকে পরিকল্পিতরূপে সাজিয়ে তোলার মহৎ উদ্যোগকে স্বাগত জানান। কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক) এর চলমান কার্যক্রমের ভূয়সী প্রশংসা করে কউককে সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
আলোচনা সভা শেষে কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক) এর পক্ষ হতে ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজের কোর্স এসডিএস মেজর জেনারেল মো: রাশেদ আমিন, ওএসপি, আরসিডিএস, এনডিসি, পিএসসি (অব:) কে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠান শেষে প্রতিনিধি দলের সম্মানে স্বপ্নীল সিন্ধুতে সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা ও নৈশভোজ অনুষ্ঠিত হয়।