উখিয়ায় মিয়ানমার সীমান্তে বিজিবি-মাদক কারবারী গুলিবিনিময়, ১ লাখ ২০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার

WhatsApp-Image-2021-03-01-at-8.47.19-AM.jpeg

কক্সবাজার প্রতিনিধি : কক্সবাজারের  উখিয়ায় মিয়ানমার সীমান্তে বিজিবি-মাদক কারবারী গুলিবিনিময়ের ঘটনা ঘটেছে। এতে কোন হতাহতের খবর পাওয়া না গেলেও বিজিবি সদস্যরা ঘটনাস্থলে তল্লাশী করে ১ লাখ ২০ হাজার িইয়াবা উদ্ধার করেছে। সোমবার সন্ধা সাড়ে ৬টার দিকে  কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলাধীন ৪নং রাজাপালং ইউপির জলিলের গোদা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। কক্সবাজারস্থ ৩৪ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে.,কর্ণেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ কতৃক রাতে প্রোরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা যায়। তিনি জানান, ০১ মার্চ কক্সবাজার ব্যাটালিয়ন (৩৪ বিজিবি) এর অধীনস্থ রেজুআমতলী বিওপি’র সদস্যগণ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে, কতিপয় ইয়াবা ব্যবসায়ী বিপুল পরিমাণ ইয়াবা নিয়ে মায়ানমার হতে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে পারে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে রেজুআমতলী বিওপির একটি চৌকস আভিযানিক টহল দল কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলাধীন ৪নং রাজাপালং ইউপির জলিলের গোদা নামক স্থানে সেগুন বাগানের পার্শ্বে কৌশলগত অবস্থান নিয়ে ফাঁদ পেতে থাকে। পরবর্তীতে আনুমানিক সন্ধা সাড়ে ৬টার দিকে ৩-৪ জন চোরাকারবারী সীমান্ত এলাকা হতে বাংলাদেশের দিকে আসতে থাকে এবং বিজিবি টহল দল তাদেরকে চ্যালেঞ্জ করলে চোরাকারবারীরা বিজিবি টহল দলকে লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ শুরু করে। তৎক্ষণাৎ বিজিবি টহলদল তাদের জান-মাল, অস্ত্র-গোলাবারুদ এবং সরকারী সম্পদ রক্ষার্থে চোরাকারীরদের লক্ষ্য করে ফায়ার করলে চোরাকারবারীরা তাদের সাথে থাকা লুঙ্গী দিয়ে মোড়ানো ব্যাগ ফেলে দ্রুত পাহাড়ী গহীন জঙ্গলের মধ্য দিয়ে মায়ানমারের দিকে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে টহল দল উক্ত স্থান হতে চোরাকারবারীদের ফেলে যাওয়া ব্যাগ তল্লাশী করে ১,২০,০০০ (এক লক্ষ বিশ হাজার) পীস বার্মিজ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করে, যার আনুমানিক মূল্য ৩,৬০,০০,০০০/- (তিন কোটি ষাট লক্ষ) টাকা। উক্ত ফায়ারে চোরাকারবারীরা গুলিবিদ্ধ হয়েছে কি না সে বিষয়ে জানা যায়নি। উল্লেখিত ফায়ারে কোন ধরণের হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

তিনি আরো জানান, চলতি বছরের শুরু থেকে কক্সবাজার ব্যাটালিয়ন (৩৪ বিজিবি) এর দায়িত্বপূর্ণ এলাকায় চোরাচালান ও মাদক বিরোধী অভিযান পরিচালনা করে বিজিবি টহলদল ৬ লাখ,৩৪ হাজার,৪৫৪ পিস বার্মিজ ইয়াবাসহ ৬৮ জন আসামী আটক করেছে।