সুশান্তের মৃত্যু তদন্তে বিভ্রান্ত ; কঙ্গনাকে গ্রেফতারের দাবি

kangana20190106071309.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক :

কঙ্গনা রানাউত সুবিধাবাদী মহিলা। সুশান্তের মৃত্যু তদন্তে মুম্বাই পুলিশকে বিভ্রান্ত করছেন তিনি। আমজনতা সুশান্তের বাবা কিংবা তার পরিবারকে সমর্থন করলেও, কোনো রকম স্বার্থান্বেষী, ধান্দাবাজের কথায় কান দেবে না বলে একের পর এক মন্তব্য ধেয়ে আসছে নেটদুনিয়ায়।

শুধু তাই নয়, ক্ষুব্ধ নেটজনতার একাংশ অভিনেত্রীকে গ্রেপ্তারের দাবিও তুলেছেন। যার জেরে টুইটারে এখন #arrestkanganaranaut ট্রেন্ডিং।

কেউ কেউ তো আবার কঙ্গনাকে ‘হিপোক্রিট’ বলে তুলোধনা করতেও ছাড়ছেন না। হঠাৎ কেন কঙ্গনা রানাউতকে গ্রেপ্তারির দাবিতে সরব হলেন নেটজনতা? তাদের কথায়, ‘আসলে সুশান্তের মৃত্যুর পর থেকেই কঙ্গনা লাগামছাড়া মন্তব্য করছেন। যাকে পারছেন বলিউডের তার দিকেই তোপ দাগছেন। প্রমাণ ছাড়াই যে কোনো বলিউড তারকাকে সুশান্তের মৃত্যুর জন্য দায়ী করছেন।

অন্য এক নেটিজেনের মন্তব্য, ‘গরুর মাংস ভক্ষণকারী কঙ্গনাকে গ্রেপ্তার করা হোক। সর্বক্ষণ নিজেকে ভুক্তভোগী বলে প্রমাণ করার চেষ্টা তার। নিজেকে অনেক বড় মাপের মনে করেন।’

কঙ্গনার কোন কোন সিনেমা ফ্লপ হয়েছে এবং সংশ্লিষ্ট সিনেমায় যে পরিমাণ অর্থের বিনিয়োগ করা হয়েছিল, তা কীভাবে পূরণ করা হল? সেই নিয়েও প্রশ্ন তোলেছেন অনেকে। এককথায়, কঙ্গনাকে নিয়ে বর্তমানে সরগরম সোশ্যাল মিডিয়া।

সুশান্তের মৃত্যুর পর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় একাধিক ভিডিও পোস্ট করে সরব হয়েছেন অভিনেত্রী। বলিউডের ‘আয়রন লেডি’ করণ জোহর, সালমান খান, মহেশ ভাট থেকে শুরু করে যশ রাজ ফিল্মসের কর্ণধার আদিত্য চোপড়াকেও তোয়াক্কা করেননি। ইন্ডাস্ট্রির ডাকসাইটে এই তারকাদের ‘নেপোটিজমের ঝাণ্ডাধারী’ বলে কটাক্ষও করেছেন কঙ্গনা।