অপূর্ব-নাজিয়ার সংসার ভেঙে গেল

apurva.png

টেকনাফ টুডে ডেস্ক : ছোটপর্দার জনপ্রিয় অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্বর সংসার ভেঙে গেছে। স্ত্রী নাজিয়া হাসান অদিতির সঙ্গে ডিভোর্স হয়েছে তার। বনিবনা না হওয়ায় ৯ বছরের দাম্পত্য জীবনের বিচ্ছেদ হলো দুজনের। এ খবর নিশ্চিত করেছেন নাজিয়া হাসান অদিতি নিজেই।

আজ রোববার বিকেলে মুঠোফোনে নাজিয়া বলেন, ‘অপূর্বের সঙ্গে ডিভোর্স হয়েছে, এটা সত্য।’ তবে কী কারণে বা কবে ডিভোর্স হয়েছে, সে ব্যাপারে কিছু জানাননি তিনি।

নাজিয়া বলেন, ‘অপূর্বর সঙ্গে ডিভোর্স হয়েছে মানুষের এটা জানা দরকার, জানালাম। এর বেশি কিছুই বলতে চাই না। ব্যক্তিগত বিষয় ব্যক্তিগতই থাকুক।’

অপূর্ব-নাজিয়ার দাম্পত্য জীবনে আয়াশ নামে এক পুত্র সন্তান রয়েছে। সে কার কাছে আছে জানতে চাইলে বিষয়টি এড়িয়ে যান অদিতি। তিনি বলেন, ‘আর কিছু জানাতে চাইছি না।’

অপূর্ব-নাজিয়ার একটি ঘনিষ্ঠসূত্র জানিয়েছে, চলতি বছরের প্রথমদিকে তাদের বিচ্ছেদ ঘটে। এদিকে নাজিয়া ফেসবুকেও বিষয়টি জানান দিয়েছেন। তার প্রোফাইলে রিলেশনশিপ স্ট্যাটাস বারে ‘ডিভোর্সড’ উল্লেখ করা হয়েছে। এ ছাড়া একটি পোস্টও দিয়েছেন তিনি যেখানে লেখা- আমাকে ‘ভাবী’ ডাকা বন্ধ করুন সবাই!

ডিভোর্সের ব্যাপারে জানতে অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্বর মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও যোগযোগ সম্ভব হয়নি।

এর আগে ২০১০ সালের ১৯ আগস্ট অভিনেত্রী সাদিয়া জাহান প্রভাকে বিয়ে করেছিলেন অপূর্ব। যদিও এর পরের বছরের ফেব্রুয়ারিতেই তাদের ডিভোর্স হয়। একই বছরের ১৪ জুলাই অপূর্ব পারিবারিকভাবে নাজিয়া হাসান অদিতিকে বিয়ে করেন।