porno izle sex hikaye
corum surucu kursu malatya reklam

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত থেকে চকরিয়ায় সিপিপির স্বামী-স্ত্রী দু’জন পেলেন রাষ্ট্রীয় পদক

Chakaria-Picture-14-10-2019-copy.jpg

এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া :
আন্তর্জাতিক দুর্যোগ প্রশমন দিবস- ২০১৯ উপলক্ষে ত্রাণ ও দুর্যোগ মন্ত্রণালয় কতৃক আয়োজিত ১৩ অক্টোবর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে সিপিপি’র শ্রেষ্ঠ মহিলা সেচ্ছাসেবক হিসেবে কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার বাসিন্দা আলহাজ্ব বুলবুল জন্নাতকে রাষ্ট্রীয় পদক সম্মাননা ও নগদ অর্থ পুরস্কার পেয়েছেন। তাকে রাষ্ট্রীয় পদক পরিয়ে দেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিশ্বনেত্রী মাদার অব হিউম্যানিটি জননেত্রী শেখ হাসিনা।
২০১৮ সালে একই অনুষ্ঠানে একই পদকে ভূষিত হন আলহাজ্ব মোঃ নুরুল আবচার। তিনি চকরিয়া উপজেলা সিপিপির টিম লিডার এবং কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক হিসেবে দীর্ঘদিন দায়িত্ব পালন করেছেন। অপরদিকে এবছর চকরিয়া উপজেলা সিপিপির শ্রেষ্ট মহিলা স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে পুরস্কার পাওয়া আলহাজ্ব বুলবুল জন্নাত চকরিয়া উপজেলা সিপিপির টিম লিডার মো.নুরুল আবছারের সহধর্মিণী।
অনুভুতি প্রকাশ করে আলহাজ নুরুল আবচার ও আলহাজ বুলবুল জন্নাত বলেন, এটা আমাদের চকরিয়া উপজেলা তথা কক্সবাজারবাসীর জন্য অত্যন্ত গৌরবের, বাংলাদেশে স্বামী-স্ত্রী দু’জনই একই কাটাগরীতে রাষ্ট্রীয় পদক প্রাপ্ত বোধহয় এটাই প্রথম।
এদিকে চকরিয়া উপজেলার সিপিপির শ্রেষ্ট স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে পুরস্কার প্রাপ্তিতে সফল স্বামী-স্ত্রী দুইজনকে অভিনন্দন জানিয়েছেন চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য ও চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম, চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী, উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, উপজেলা রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী ও সিপিপি দলের সদস্যবৃন্দ।
রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি চকরিয়া উপজেলার টিম লিডার ও কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক ত্রাণ সম্পাদক আলহাজ মো.নুরুল আবচার বলেন, ২০১৯ সালে সিপিপি’র একজন মহিলা শ্রেষ্ঠ সেচ্ছাসেবক হিসেবে আমার সহধর্মিণী আলহাজ্ব বুলবুল জন্নাতকে (জাতির জনক বঙ্গবন্ধু ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রতিচ্ছবি সম্বলিত) রাষ্ট্রীয় মেডেল পরিয়ে দেন।
২০১৮ সালে শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে আমাকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে দুর্যোগ ও ত্রাণ মন্ত্রী মহোদয় রাষ্ট্রীয় মেডেল, সনদ ও চেক হস্তান্তর করেন। এইজন্য সিপিপি’র সহকারী পরিচালক, উপ-পরিচালক ও পরিচালক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা চকরিয়া, জেলা প্রশাসক কক্সবাজার ও দু্র্েযাগ ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব সহ উর্ধতন কর্মকর্তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।
মো. নুরুল আবছার বলেন, আমি ১৯৭৩ সাল থেকে সিপিপি’র টিম লিডার, ১৯৮৭ সাল থেকে বৃহত্তর চকরিয়া উপজেলা টিম লিডার। আমার সহধর্মিণী ১৯৯৬ সাল থেকে মহিলা স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছে। আমি প্রায় ৪৭ বছর ধরে টিম লিডার এবং ৩৩ বছর ধরে উপজেলা টিম লিডার হিসাবে দায়িত্ব পালন করে এসে দুই জনই রাষ্ট্রীয় পদক, সনদ ও উপহার পেয়ে নিজেদেরকে ধন্য মনে করছি। ভবিষ্যতেও যেন দুর্যোগে মানুষের সেবা করতে পারি মহান আল্লাহর রাব্বুল আলামিনের কাছে প্রার্থনা করছি এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিশ্বনেত্রী মাদার অব হিউম্যানিটি জননেত্রী শেখ হাসিনার সু-স্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ূ কামনা করছি।##

Top
bahis siteleri