bahis siteleri deneme bonusu veren siteler bonusal casino siteleri piabet giriş piabet yeni giriş
izmir rus escortlar
porno izle sex hikaye
corum surucu kursu malatya reklam

শিক্ষকের মৃত্যু হয় না…

20190727_112949.jpg

মানুষের মৃত্যু হয় কিন্তু শিক্ষকেরও কি মৃত্যু হয়? আমার মনে হয় না। ব্যক্তির মৃত্যু হতে পারে, কিন্তু শিক্ষক বেঁচে থাকে তাঁর অগনীত ছাত্র-ছাত্রীদের মনের মাঝে, কর্মের মাঝে, কৃতিত্বের মাঝে, সফলতার মাঝে। শিক্ষক মানে মূলত জীবনের পথ প্রদর্শক, অন্ধকার পথের আলোকবর্তিকা। ঠিক সে অর্থেই স্যার ছিলেন অন্ধকারের আলোকবর্তিকাই। বলছি সদ্য প্রয়াত ফজলুল করিম আমাদের হ্যাড স্যার- ফজল করিম স্যার’র কথা।
কিছু মৃত্যু মানুষকে বাকরুদ্ধ করে দিতে পারে সহজেই। আজকে স্যারের মৃত্যুর খবর পেয়ে নিজেকে সামলে নিতে পারছিলাম না। কষ্ট হচ্ছিল খুব, কারণ অনেকের মত আমিও স্যারের খুব আদরের ছাত্র ছিলাম। পড়াশুনা খুব একটা করতে চাইতাম না। তবুও আমার বাবা (প্রয়াত তোফাজ্জুল আহমদ মেম্বার) আর স্যারের সম্পর্ক ছিল খুব বেশি হৃদ্যতার। এটাও একটা বড় কারণ ছিল আমাকে আদর করার-কান ধরে শাসন করার। কান ধরে বলতেন বাপের জন্য হলেও পড়াশুনাটা কর। অনেক বার স্যারকে দেখতে যাবো ভেবেছিলাম, কিন্তু যাওয়া হয়নি শেষ পর্যন্ত। আজ (২৭ জুলাই) সকালে ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতাল থেকেই চলে গেলেন না ফেরার দেশে, আমার-আমাদের প্রিয় গুরু, প্রিয় শিক্ষক, প্রিয় অভিভাবক, টেকনাফ পাইলট উপচ্চ বিদ্যালয়ের দীর্ঘ দিনের সাবেক শ্রেষ্ট প্রধান শিক্ষক ফজল করিম স্যার। আল্লাহ স্যারকে জান্নাতি করুন।
স্যারের বাড়ি ছিল কক্সবাজার শহরে। তবে গ্রামের বাড়ি ছিল সদর উপজেলার ভারুয়াখালী ইউনিয়নের বানিয়াপাড়া গ্রামে। প্রধান শিক্ষক ও সত্যিকারের এক জন অভিভাবক হিসেবে স্যারকে পেয়েছিলাম আমরা টেকনাফ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে। টেকনাফের শিক্ষার মান উন্নয়ন, শৃঙ্খল শিক্ষালয়ের রূপকার হিসেবে তাঁর অবদান অনস্বীকার্য। স্যার ছিলেন, তবে আমরা তাঁর প্রাপ্য সম্মানটুকুনই যথাযথভাবে দিতে পেরেছি বলে মনে হয়না। আজ আমাদের মাঝে স্যার নেই। আছে, স্যারের স্মৃতি, স্যারের শাসন, স্যারের শিক্ষা।
আমরা জানি প্রত্যেক জীবনকেই মৃত্যুকে বরন করতে হবে। এবং মুত্যু চিরন্তন। তবে কিছু মৃত্যুর মৃত্যু হয় না, শুধু দেহটাই হয়তো আড়াল হয়। স্যারের মৃত্যুটাও শুধু দেহ থেকে প্রাণ ত্যাগ করেছে। কিন্তু তাঁর কর্ম, তাঁর শিক্ষা, তাঁর আদর্শ দেশে-বিদেশে, সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন পদে, বিভিন্ন যায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা তাঁর ছাত্র-ছাত্রীদের কাছে স্মৃতি হয়ে থাকে-থাকবে। ফজলুল করিম আমাদের ফজল করিম স্যারও এমনই এক জন। যাঁকে ভালবাসায়, স্মৃতিতে, স্মরণে, আদর্শে ধারন করেই পথ চলছি, চলবো তাঁর গর্বিত ছাত্র হয়ে। স্যার ভাল থাকুন ওপারে। বিন¤্র শ্রদ্ধা…

##

হুমায়ুন কবির
সাংবাদিক, চট্টগ্রাম।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top
antalya escort bursa escort adana escort mersin escort mugla escort