ভোলায় পুকুরের পানিতে অদ্ভুত আলো!

image-201072-1563545678.jpg

ডেস্ক নিউজ :
ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার একটি পুকুরে অদ্ভুদ আলো জ্বলছে। এ আলো দেখতে হাজারো উৎসুক মানুষ ভিড় জমেছে করেছে পুকুরপাড়জুড়ে।

উপজেলার এওয়াজপু ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের গনি মিয়ার সেন্টার এলাকায় হাতেম আলী হাওলাদার বাড়ির পুকুরের পানিতে অদ্ভুত আলো জ্বলতে দেখা গেছে।

একে দেখতে হাজারো উৎসুক মানুষের ভিড় জমেছে পুকুরপাড় জুড়ে।

বৃহস্পতিবার রাত ১১টার দিকে এমনি দৃশ্যের দেখা মিলেছে হাতেম আলী হাওলাদার বাড়ির পুকুড়ে।

স্থানীয়রা জানান, গত মঙ্গলবার সন্ধ্যার পরে বাড়ির লোকজন পুকুড়ে হাতমুখ ধুতে গেলে পুকুড়ের ঠিক মাঝখানে চাঁদের মতো গোলাকৃতির আলো জ্বলতে দেখেন। ঠিক তারপর দিন বুধবার থেকে ৩ দিন যাবৎ ওই আলোটি পুকুরপাড়ের উত্তর-পশ্চিম কোণের কিনারায় দেখা যাচ্ছে।

আলোটির ব্যস হচ্ছে দেড় থেকে দুই ফিটের মতো, থেকে থেকে সেই আলো বাড়ে ও কমে এবং কোনো আলো জ্বালালে মুহূর্তেই হারিয়ে যায় সেই আলো। এমন পরিস্থিতিতে ওই বাড়ির কেউ পুকুরে নামছে না ভয়ে।

আনিস হাওলাদারের ছেলে মো. আল আমিন বলেন, আমরা ৩ দিন আগে পুকুরের মাঝখানে একটা অদ্ভুত আলো দেখি এবং পুকুরের মাছগুলো খুব ছটফট করছিল। পরদিন থেকে আলোটি পুকুরের উত্তর পশ্চিম কোণে অবস্থান করছে।

হাওলাদার বাড়ির সুজন বলেন, আমি হাস নামিয়েছি কিন্তু পুকুরে হাঁস থাকছে না খুব দ্রুত উঠে যাচ্ছে। এমন অবস্থায় পার্শ্ববর্তী এলাকার ইউনুস মিয়া ওই পুকুরের যেখানে আলো, সেখানে নেমে প্রায় ডুবেই গিয়েছিল। অথচ সেখানে ২-৩ হাত পানি হবে।

তিনি বলেন, আমরা বাঁশ দিয়ে পানির নিচে কিছু আছে কিনা সেটা দেখতে চেষ্টা করেছি কিন্তু কিছুই পাচ্ছি না আমরা খুব আতঙ্কে আছি।

এ বিষয়ে এওয়াজপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মাহাবুব আলম খোকন বলেন, আমি এলাকায় গিয়ে সেই পুকুরটি পরিদর্শন করেছি এখনো নিশ্চিত কিছুই বলা যাচ্ছে না।

শশিভূষণ থানার ওসি মনিরুজ্জামান বলেন, আমি ঘটনাস্থলে ফোর্সসহ গিয়ে দেখে এসেছি দিনের বেলা এ আলো দেখা যাচ্ছে না। কিন্তু রাতে একটি আলো দেখা যাচ্ছে। আমরা তদন্ত করে ব্যবস্থা নেব।