এনজিওর স্টিকারযুক্ত প্রাইভেটকারে ২০ হাজার ইয়াবা, আটক-২

66385564_462186810996035_1191888149450588160_n.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক :
হিউম্যানিটি ফার্স্ট সার্ভিং মেনকাইন্ড- নামক এনজিওর স্টিকারযুক্ত প্রাইভেটকার থেকে ২০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করেছে র‌্যাব।
সেই সঙ্গে এতে জড়িত থাকার অভিযোগে দুইজনকে আটক করা হয়েছে।
তারা হলেন- চট্টগ্রাম পাঁচলাইশ থানার নওশের আলী বাড়ির বাসা নং-৩৬/৪৩ এর বাসিন্দা মো. কামরুল ইসলাম ভুঁইয়ার ছেলে মো. দৌলত আজিম ভুঁইয়া (৩৯) ও লক্ষিপূরের রামানন্দি চাদখালী এলাকার মো. আনোয়ার হোসেনের ছেলে রুবেল রানা (২২)।
মঙ্গলবার (৯ জুলাই) বিকাল ৩টার দিকে শহরের প্রবেশদ্বার লিংকরোড থেকে তাদের আটক করা হয়। প্রাইভেট কারটি কক্সবাজার থেকে চট্টগ্রামের দিকে যাচ্ছিল বলে র‌্যাব জানিয়েছে। মো. দৌলত আজিম ভুঁইয়া চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের অস্থায়ী কর পরিদর্শক ছিলেন বলে জানা গেছে।

র‌্যাপিড এ্যাকশান ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)-১৫ এর কোম্পানী কমান্ডার মেজর মো. মেহেদী হাসান জানান, হিউম্যানিটি ফার্স্ট সার্ভিং মেনকাইন্ড- নামক এনজিওর স্টিকারযুক্ত প্রাইভেট কারে (যার রেজি: নং-চট্ট. মেট্রো ক-০২-১৪৩৬) করে ইয়াবার চালান নিয়ে যাচ্ছে, এমন সংবাদ ছিল। সেই তথ্য মতে লাল রঙের কারটি থামিয়ে তল্লাসি চালিয়ে ২০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। ইয়াবাগুলো গাড়ির পেছনের অতিরিক্ত চাকার মধ্যে বিশেষ কায়দায় লুকানো ছিল।
জিজ্ঞাসাবাদে আটক দুইজনই স্বীকার করেছে, তারা দীর্ঘদিন ধরে চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন জায়গায় ইয়াবা পাচার করে আসতেছে। তাদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানান মেজর মো. মেহেদী হাসান।