টেকনাফ সীমান্তে আবারো পরিত্যক্ত ইয়াবার বৃহৎ চালান উদ্ধার

Teknaf-Pic-A-12-08-18.jpg

হুমায়ূন রশিদ : চলমান মাদক বিরোধী অভিযানে যেখানে মানুষ প্রাণ বাঁচাতে বন-জঙ্গলে পালিয়ে বেড়াচ্ছে সেই পরিস্থিতির মধ্যেও সীমান্তে বৃহৎ আকারের মাদকের পরিত্যক্ত চালান উদ্ধারের ঘটনায় আবারো নতুন করে অজানা আতংক দেখা দিয়েছে।
জানা যায়, ১২ আগস্ট ভোররাত সাড়ে ৩টায় টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের নাজির পাড়া বিওপির হাবিলদার মোঃ আশরাফুল আলম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে একটি টহলদল নিয়ে নাজির পাড়া রহমান প্রজেক্ট এলাকায় টহলে যায়। কিছুক্ষণ পর ১০/১২ জনের একটি দল সামনের দিকে আসতে দেখে চ্যালেঞ্জ করা মাত্র একটি বস্তা ফেলে পালিয়ে যায়। ঘটনাস্থল হতে একটি বস্তা উদ্ধার করে ব্যাটালিয়ন সদরে নিয়ে গণনা করে ১০ কোটি ২০ লক্ষ টাকা মূল্যমানের ৩ লক্ষ ৪০ হাজার পিস ইয়াবা বড়ি উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। যা পরবর্তীতে উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, বেসামরিক প্রশাসন, মাদকদ্রব্য অধিদপ্তরের প্রতিনিধি, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তি ও মিডিয়া কর্মীদের উপস্থিতিতে ধ্বংস করার জন্য ব্যাটালিয়ন সদরে জমা রাখা হয়েছে।
এদিকে মাদক বিরোধী অভিযানে ইয়াবার চালান অনুপ্রবেশ তুলনামূলক হারে কমে আসলেও হঠাৎ করে বৃহৎ আকারের পরিত্যক্ত চালান আটকের ঘটনায় আবারো নতুন করে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার সৃষ্টি হয়েছে।