চট্টলবীর এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর কবর জেয়ারত করলেন লায়ন কমরউদ্দিন আহমদের নেতৃত্বে চকরিয়া সমিতির নবনির্বাচিত নেতৃবৃন্দ

Chakaria-Picture-27-12-2017.jpg

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া : চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের সাবেক তিনবারের সফল মেয়র ও মহানগর আওয়ামীলীগের সদ্য প্রয়াত সভাপতি চট্টলবীর এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর কবর জেয়ারত করেছেন চট্টগ্রামস্থ চকরিয়া সমিতির নবনির্বাচিত কমিটির নেতৃবৃন্দ। গত ২৫ ডিসেম্বর সকালে চকরিয়া সমিতির নবনির্বাচিত সভাপতি কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ লায়ন কমরউদ্দিন আহমদ এর নেতৃত্বে চট্টগ্রামস্থ চকরিয়া সমিতির নবনির্বাচিত কমিটির নেতৃবৃন্দ চট্টগ্রামবাসির প্রিয়নেতা মহিউদ্দিন চৌধুরীর সমাধিস্থলে গিয়ে জেয়ারত করেন। পরে কমরউদ্দিন আহমদসহ নেতৃবৃন্দ মহিউদ্দিন চৌধুরীর চট্টগ্রামের ষোলশহরস্থ বাসভবনে যান। সেখানে মহিউদ্দিন চৌধুরীর বড়ছেলে কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল এর সাথে সাক্ষাত করেন। এরপর বাসভবনে মহিউদ্দিন চৌধুরীর সহ-ধর্মীনি চট্টগ্রাম মহানগর মহিলা আওয়ামীলীগের সভানেত্রী হাসিনা মহিউদ্দিনের সাথে কুশল বিনিময় করেন লায়ন কমরউদ্দিন আহমদসহ চকরিয়া সমিতির সকল নেতৃবৃন্দ।
চট্টলবীর মহিউদ্দিন চৌধুরীর কবর জেয়ারত ও তাঁর বাসভবনে পরিবার বর্গের সাথে সাক্ষাতকালে সভাপতি আলহাজ লায়ন কমরউদ্দিন আহমদ এর সাথে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রামস্থ চকরিয়া সমিতির নবনির্বাচিত কমিটির সহ-সভাপতি শিক্ষানুরাগী ড. মোহাম্মদ সানা উল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক হামিদ হোছাইন, যুগ্ম সম্পাদক আলহাজ এম হামিদ হোছাইন, অর্থসম্পাদক জাহাংগীর কবির চৌধুরী, মহিলা বিষযক সম্পাদক ও কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য উম্মে কুলছুম মিনু, চকরিয়া সমিতির প্রচার সম্পাদক আবদুল মান্নান খোকন, আইন বিষযক সম্পাদক মৌলভী আবু রাইছ আবদুল মান্নান, সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট নাছির উদ্দিন, দপ্তর সম্পাদক মিনারুল হক, সদস্য অলিদুল আজীম, মোহাম্মদ রিদুয়ান, সাবেক ছাত্রনেতা আবদুল হান্নান চৌধুরী, শিক্ষাবিদ ওসমান সওয়ার, এমএ রানা ও মিজানুর রহমান প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।
বাসভবনে সাক্ষাত ও কুশল বিনিময় কালে লায়ন কমরউদ্দিন আহমদ মহিউদ্দিন চৌধুরী সহ-ধর্মীনি হাসিনা মহিউদ্দিন ও ছেলে ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নরফেলকে চট্টগ্রামস্থ চকরিয়া সমিতির বর্তমান সাংগঠনিক কার্যক্রম ও চকরিয়া-পেকুয়াসহ কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক তৎপরতা সর্ম্পকে অবহিত করেন। ওইসময় তিনি পরিবারবর্গকে বলেন, চট্টলবীর মহিউদ্দিন চৌধুরী চট্টগ্রাম নগরে বসবাস করলেও চকরিয়া-পেকুয়া তথা কক্সবাজার জেলার মানুষকে তিনি খুব বেশি ভালবাসতেন। তিনি এই অঞ্চলের যে কোন সমস্যা নিরশনে সর্বোচ্চ চেষ্ঠা করেছেন। চকরিয়া-পেকুয়াবাসি অতীতে বীর চট্টলার অভিভাবক মহিউদ্দিন চৌধুরীর কাছ থেকে অনেক ধরণের সহযোগিতা পেয়েছে। আশাকরি তাঁর অবর্তনে পরিবারবর্গ আগামী দিনে চকরিয়া-পেকুয়া তথা কক্সবাজার জেলার জনসাধারণের কল্যানে থাকবে। #