বিজয় দিবস পালনের প্রস্তুুতি ও শহীদ বুদ্ধিজীবিদের আত্মার মাগফেরাত কামনায় আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

20171214_153215.jpg

মুুুুহাম্মদ জুুুবাইর, টেকনাফ::
টেকনাফে ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দ্বিবস পালনের প্রস্তুতি সভা ও স্বাধীনতা যুদ্ধে শাহাদত বরণ কারী এবং শহীদ বুদ্ধিজীবিদের আত্মার মাগফেরাত কামনায় আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে৷ এ সাবরাং নয়াপাড়া ইত্তেহাদুল ওলামার উদ্যোগে ১৪ ডিসেম্বর কাটাবনিয়া মাদরাসা মিলনায়তনে বিকাল ২টায় প্রবীণ আলেম হাফেজ মাওঃ আবদুল্লাহ সাহেবের সভাপতিত্বে, নয়াপাড়া ইত্তেহাদুল ওলামার সেক্রেটারী মাওঃ মুনির আহমদের পরিচালনায়, পবিত্র কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়৷
এতে মাওঃ জহির আহমদ, মুফতী শাব্বির আহমদ, নয়াপাড়া ইত্তেহাদুল ওলামার সভাপতি মাওঃ আবদুল জলিল,সহ- সভাপতি মাওঃ আবুল কাসেম, মাওঃ মোঃ আয়্যুব, মাওঃ মুহিব্বুল্লাহ, মাওঃ আমির হোসাইন,মাওঃ আলতাফ হোসাইন, মাওঃ ছৈয়দ আহমদ, মাওঃ সোলতান,মাওঃ আবদুর রহিম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন৷ এসময় বক্তারা বলেন মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে ওলামায়ে কেরাম অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে৷
স্বাধীনতা যুদ্ধে বিজয় অর্জনে যেমন ওলামায়ে কেরাম ভুমিকা ছিল, তেমনি দেশের আর্জিত স্বাধীনতা ও দেশের ভূখন্ড রক্ষায় ওলামা-মাশায়েখদের সজাগ থাকতে হবে৷ এবং আগামী ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস স্ব স্ব স্থান থেকে যথাযত পালনের আহবান জানিয়ে বলেন বূদ্বিজীবিদের হত্যা করে এ দেশকে বিবেকহীন করতে চেয়েছিল৷ আমরা তাদেরসহ সকল দেশ প্রেমিক যারা মৃত্যু বরণ করেছে তাদের আত্বার মাগফেরাত কামনা করছি ৷
সাবরাং নয়াপাড়া ইত্তেহাদুল ওলামার সভাপতি মাও আবদুল জলিল বলেন সমাজে অসামাজিক কার্য্যকলাপ প্রতিরোধ, সদস্যদের আত্মনির্ভরশীল করা,দ্বীনি দাওয়াত সমাজের প্রতিটি স্থরে পৌছে দিতে,গরীব ওলামাদের বিশেষ সহযোগীতা ও সকল ওলামাদের ঐক্যবদ্ধ করতেই সাবরাং নয়াপাড়া ইত্তেহাদুল ওলামা নামের এ সংগঠনটি ২০১৬ সালের শেষ দিকে সচেতন ওলামায়ে কেরামের পরামর্শে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে৷ আগামীতে যে কোন কর্মসুচী পালনে সকলের সার্বিক সহযোগীতা ও কামনা করেছেন তিনি৷ আলোচনা সভা শেষে শহীদদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দোয়ার মাধ্যমে সভা সমাপ্ত করেন৷