চকরিয়ায় বিজয় দিবস উদযাপনের প্রস্তুতি সভায় রেজাউল করিম : জনগণ মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিজয় দিবসে মিলিত হবে

.jpg

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া : কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান রেজাউল করিম বলেছেন-জননেত্রী শেখ হাসিনা আজীবন জনগণের ক্ষমতায়ণ ও ভাতের অধিকার নিশ্চিত করার জন্য লড়াই-সংগ্রাম করেছেন, কারণ মানুষের এ অধিকারগুলোই ছিলো মুক্তিযুদ্ধের চেতনা। তাই এবার দেশ-জাতি জনগণের ক্ষমতায়ণ এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে বুকে ধারণ করেই আসন্ন বিজয় দিবস উদযাপন করবে। তিনি ১২ ডিসেম্বর চকরিয়া জনতা শপিং কমপ্লেক্সে বিজয় দিবস-২০১৭ উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত এক প্রস্তুতি সভায় প্রধান অথিতির বক্তব্যে একথা বলেন।
তিনি বলেন- জননেত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের কারণে দেশ আজ সমৃদ্ধির স্বর্ণদ্বারে পৌঁছতে সক্ষম হয়েছে, এটি আমাদের জন্য এক বিরাট সফলতা। কিন্তু কোন দুর্বৃত্তায়ণের কারণে এসব সফলতা যাতে ¤øান না-হয়, সেদিকে আমাদের তীক্ষè দৃষ্টি রাখতে হবে এবং সফলতার কথা জনগণের কাছে যথাযথভাবে পৌঁছিয়ে দিয়ে দলীয় নেতা-কর্মীদেরকে শেখ হাসিনার একেকজন বার্তা বাহক হিসেবে কাজ করতে হবে।
কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য এ.টি.এম. জিয়াউদ্দিন চৌধুরী এ সভায় সভাপতিত্ব করেন। বক্তৃতা করেন- চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আলহাজ¦ ফজলুল করিম সাঈদী, যুগ্ম সম্পাদক আজিমুল হক, মাতামুহুরী উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা এরফান উদ্দিন চৌধুরী, উপজেলা স্বচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শওকত হোসেন, পৌর কৃষক লীগের সভাপতি সুলাল চন্দ্র সুশীল, উপজেলা কৃষকলীগ নেতা কফিল উদ্দিন, পৌর কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী বোরহান উদ্দিন, মাতামহুরী উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মিজবাউদ্দিন বেলাল, চকরিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা মারুফ, বরইতলী ইউনিয়ন কৃষকলীগ নেতা গিয়াস উদ্দিন, পৌর ১ নং ওয়ার্ড কৃষকলীগের সভাপতি মোঃ কালু, ২ নং ওয়ার্ড কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ ছুট্টু, চকরিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা ইনতিসার রাব্বী, আরিফুল ইসলাম, আজিম উদ্দিন, জিকু, চকরিয়া কলেজ ছাত্রলীগ নেতা জুলফিকার আলী ভুট্টো, মুন্না, মানিক, মিরাজ, মোশাররফ হোসেন, পেকুয়া কলেজ ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দের মধ্যে মিরাজ উদ্দিন আশেক, সাইমন কবির সুমন,সাজিদ, অনিক, হুজ্জাতুল ইসলাম তকী বক্তৃতা করেন।
বিজয় দিবস উদ্্যাপন কমিঠি গঠিতঃ সভায় আসন্ন বিজয় দিবস-২০১৭ ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীনার মাধ্যমে পালনের লক্ষে ১০১ সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিঠি গঠন করা হয়েছে। কমিটির আহŸায়ক হিসেবে নির্বাচিত করা হয়েছে জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য এ.টি.এম. জিয়াউদ্দিন চৌধূরীকে। কমিটির অপরাপর নেতৃবৃন্দ হলেন- আলহাজ¦ ফজলুল করিম সাঈদী- সদস্য সচিব ও আজিমুল হক (চেয়ারম্যান, সুরাজপুর ইউপি), এরফান উদ্দিন চৌধুরী, শওকত হোসেন এবং সুলাল চন্দ্র সুশীল- যুগ্ম আহŸায়ক। এছাড়াও জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাহ্্ উদ্দিন আহামেদ সি.আই.পি. জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বৃন্দ যথাক্রমে এডভোকেট আমজাদ হোসেন, রেজাউল করিম, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য লায়ন কমর উদ্দিন আহামদ এবং শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক খালেদ মোহাম্মদ মিতুন সহ জেলা আওয়ামীলীগের আরো কয়েকজন উর্ধ্বতন নেতৃবৃন্দের সমন্বয়ে একটি উপদেষ্টা পরিষদ গঠন করা হয়েছে।
বিজয় দিবসের কর্মসূচীঃ ১৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৪৬ তম বর্ষ পূর্তির দিনে বিজয় উৎসবের কর্মসূচীর উদ্রেবাধন করা হবে। এরপর ১৭ ও ১৮ ডিসেম্বর দু’দিন ব্যাপী জনতা শপিং কমপ্লেক্সে বিজয় দিবসের আলোচনা সভা এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পালন করা হবে।