খালেদা জিয়ার জনপ্রিয়তায় ভীত হয়ে নোংরা খেলায় মেতেছে অবৈধ সরকার-লুৎফর রহমান কাজল

43.jpg

বার্তা পরিবেশক : বাংলাদেশ জাতীয়বাদী দল-বিএনপির কেন্দ্রীয় মৎস্যজীবি বিষয়ক সম্পাদক ও কক্সবাজার সদর-রামু আসনের সাবেক সাংসদ লুৎফর রহমান কাজল বলেছেন, সরকার প্রতিহিংসার বশবর্তী হয়ে বার বার দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার মিথ্যা মামলার জামিন বাতিল করছে। অথচ যে মামলায় খালেদায় জিয়া বার বার জামিন বাতিল করা হচ্ছে এই রকম মামলায় দেশের হাজার হাজার লোক স্থায়ী জামিন পাচ্ছে। আদালতকে প্রভাবিত করে এই নোংরা খেলায় মেতেছে সরকার। অবৈধ সরকার দেশনেত্রী ও বিএনপিকে ভয় পেয়ে এই অপচেষ্টা করে যাচ্ছে। কিন্তু দেশের জনগণ তার সমুচিত জবাব দেয়ার জন্য প্রস্তুত রয়েছে। জনগণ কোনো ভাবেই খালেদাকে জেলে যেতে দেবে না। তারপরও যদি অপচেষ্টা করা হয় মানুষ আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারের এই অপচেষ্টা ভন্ডুল করে দেবে। শনিবার বিকালে জেলা বিএনপি উদ্যোগে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির প্রতিবাদে জেলা বিএনপির কার্যালয় চত্বরে আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।
জেলা বিএনপির প্রচার সম্পাদক অধ্যাপক আকতার চৌধুরীর সঞ্চালনায় ও সভাপতি শাহজাহান চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই বিক্ষোভ সমাবেশে অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি এটিএম নূরুল বশর চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক এড. শামীম আরা স্বপ্না, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও শ্রমিকদল সভাপতি রফিকুল ইসলাম, পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক রাশেদ মো. আলী, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি অধ্যাপক আজিজুর রহমান, জেলা যুবদলের সভাপতি সৈয়দ আহামদ উজ্জল, সদর উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দীন জিকু, জেলা সেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক এড. মো ইউনুছ, জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মো. জিশান উদ্দীন জিশান, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রাসেদুল হক রাসেল, সাধারণ সম্পাদক এড. মনির উদ্দীন মনির, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীনুল ইসলাম শাহীন, শহর যুবদলের সভাপতি আজিজুল হক সোহেল, শহর স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি হাজী আবদুর রহিম, শহর ছাত্রদলের সভাপতি এনামুল হক এনাম, শহর শ্রমিকদলের সভাপতি এস্তাক আহামদ প্রমুখ। শুরুতে কোরআন তেলোয়াত করেন শ্রমিক নেতা শামসুল আলম। সমাবেশে জেলা বিএনপি ও অঙ্গ-সংগঠন নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
সমাবেশে লুৎফর রহমান কাজল আরো বলেন, দেশে আইনের শাসন না থাকলে, ভোট দেয়ার অধিকার না থাকলে সরকার জনপ্রিয়তা হারায়। এসব কারণে আওয়ামী সরকারের জনপ্রিয়তা শূন্যের কোঠায় নেমেছে। আগামীতে তাদের সামনে কোনো আশা নেই। তাই তারা দিশেহারা হয়ে খালেদা জিয়া ও বিএনপির বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে নেমেছে। রাজপথে আন্দোলনের মাধ্যমে জনগণ এই ষড়যন্ত্র প্রতিহত করবে। তিনি বলেন, তারা বলে তারা অনেক অনেক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। যদি এতই জনপ্রিয়তা অর্জন করে থাকেন তাহলে তত্ত¡াবধায়ক বা নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে ভয় কেন। আসল কথা হলো এভাবে নির্বাচন হলে তাদের ভরাডুবি হবে। ভরাডুবি হলে জনগণ তাদেরকে দেশছাড়া করবে।
জেলা বিএনপির সভাপতি শাহজাহান চৌধুরী বলেন, জিয়া পরিবার ১৬ কোটি মানুষের সম্পদ। কিন্তু আওয়ামী সরকার তিনবারের নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে নোংরা খেলায় মেতেছে। বাড়ি কেড়ে নেয়া থেকে শুরু করে নানা ভাবে প্রতিহিংসামূলক আচরণ করছে। তেমনিভাবে আইনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে বার বার খালেদা জিয়ার মিথ্যা মামলার জামিন বাতিল করছে। আর বিকাশ মার্কা নির্বাচন দেশে হতে দেয়া হবে না। যদি তার চেষ্টা করা হয় তাহলে রাজপথে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।

সংবাদ প্রেরক
ইউসুফ বদরী
দপ্তর সম্পাদক
বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি কক্সবাজার জেলা।
০১৭১১-৪০৭৮৮৩