হ্নীলায় পুলিশের অভিযানে ইয়াবাসহ আটক-১ : রোহিঙ্গা গডফাদার অধরা

III.jpg

বিশেষ প্রতিবেদক : টেকনাফ মডেল থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে ইয়াবাসহ ১জনকে আটক করেছে। তবে এই পরিস্থিতির মধ্যে অধরায় থাকা রোহিঙ্গা গডফাদার ও ইয়াবা চোরাকারবারীদের অপতৎপরতা জনমনে ক্ষোভের সৃষ্টি করেছে।
জানা যায়,৯ অক্টোবর ভোররাত সাড়ে ৪টারদিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে টেকনাফ মডেল থানার এসআই আশিষ, নির্মলেন্দু চাকমা, এএসআই মিছবাহ ও ক্যাউ মং মারমার নেতৃত্বে টেকনাফ থানা পুলিশের একটি দল উপজেলার হ্নীলা পশ্চিম লেদার মৃত আবুল কাশেমের পুত্র আব্দুর রহমান (২৯) এর বাড়িতে অভিযান চালিয়ে ৬ হাজার ইয়াবা বড়িসহ হাতে-নাতে আটক করে। এসময় লক্ষ পিস ইয়াবা বড়ির চালানের মালিক নয়াপাড়া শরণার্থী ক্যাম্পের এইচ ব্লকের এমআরসি-২৪১৭৩, শেড নং-১২১৯/২ রোমের বাসিন্দা ইয়াবা গডফাদার মোঃ আলম পালিয়ে যায়।
উল্লেখ্য,পালিয়ে যাওয়া এই রোহিঙ্গা ইয়াবা গডফাদার নয়াপাড়া শরণার্থী ক্যাম্পের রেজিষ্টার্ড হলেও বেশির ভাগ সময় চোরাই পথে মিয়ানমারে অবস্থান করে। দক্ষিণ-পশ্চিম লেদা এবং টেকনাফ জালিয়াপাড়ার কয়েকটি শক্তিশালী সিন্ডিকেটের মাধ্যমে নানা কৌশলে বড় বড় ইয়াবার চালান চোরাকারবারীদের নিকট পৌঁছে দেয়। এক লাখ পিস এই ইয়াবার চালানটি নিয়ে ঘরে ঢোকা মাত্রই পুলিশ অভিযানে যায়। তবে পুলিশ ৬হাজার ইয়াবাসহ আব্দুর রহমানকে আটক করেছে বলে দাবী করেন।