পুলিশ-জনতা ও জনপ্রতিনিধির সমন্বয় থাকলে সকল অপরাধ নির্মুল করা সময়ের ব্যাপার মাত্র

Chakaria-Picture-28-10-2017.jpg

চকরিয়ায় কমিউনিটি পুলিশের সমাবেশে-হাজি ইলিয়াছ এমপি
এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া :
‘পুলিশই জনতা, জনতাই পুলিশ’ স্লোগানে চকরিয়া থানা পুলিশের উদ্যোগে গতকাল শনিবার সকালে বর্ণাঢ্য র‌্যালী ও সমাবেশ আয়োজনের মাধ্যমে কমিউনিটি পুলিশিং ডে ২০১৭ উদযাপন করা হয়েছে। থানা সেন্টার এলাকায় বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে কমিউনিটি পুলিশিং ডে উদ্বোধন করেন চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য হাজি মোহাম্মদ ইলিয়াছ। অনুষ্ঠিত র‌্যালীটি উপজেলা সদরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন শেষে ফের থানা কমাউন্টের নতুন ভবনের মাঠে সমাবেশে সভায় মিলিত হয়।
চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও থানার ওসি তদন্ত মো.মিজানুর রহমানের সঞ্চলানায় অনুষ্টিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সংসদ সদস্য হাজি মো.ইলিয়াছ। সমাবেশের উদ্বোধক ছিলেন চকরিয়া পৌরসভার মেয়র ও উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন সম্পাদক আলমগীর চৌধুরী। সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন নবাগত উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) খোন্দকার মো.ইখতিয়ার উদ্দিন আরাফাত, উপজেলা কমিউনিটি পুলিশের সভাপতি ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান এটিএম জিয়া উদ্দিন চৌধুরী জিয়া, মাতামুহুরী সাংগঠনিক থানা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি ও সাবেক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এসএম জাহাঙ্গীর আলম বুলবুল, জেলা পরিষদের প্যালেল চেয়ারম্যান ও চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি জাহেদুল ইসলাম লিটু, উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ছরওয়ার আলম, সহ-সভাপতি ও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী, উপজেলা কেন্দ্রীয় সমিতির চেয়ারম্যান আলহাজ সেলিম উল্লাহ ও উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক কমিউনিটি পুলিশের সাধারণ সম্পাদক ও সুরাজপুর-মানিকপুর ইউপি চেয়ারম্যান আজিমুল হক আজিম।
সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন চকরিয়া পৌরসভার কমিউনিটি পুলিশের সভাপতি পৌরসভা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মো.ওয়ালিদ মিল্টন, চকরিয়া কোর্ট পুলিশের ইন্সপেক্টর মো.নাজমুল হক কামাল, চকরিয়া প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি এমআর মাহমুদ, উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি ও চিরিঙ্গা ইউপি চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ছৈয়দ আলম কমিশনার, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও কাকারা ইউপি চেয়ারম্যান শওকত ওসমান, পৌরসভার কাউন্সিলর মুজিবুল হক মুজিব, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক বাবলা দেবনাথ ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আলহাজ হায়দার আলী, বদরখালী ইউনিয়ন কমিউনিটি পুলিশের সভাপতি চেয়ারম্যান খাইরুল বশর ও সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন টিটু প্রমুখ। সমাবেশে উপজেলার বিভিন্ন ইউপি চেয়ারম্যান, প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, পুলিশের কর্মকর্তা-কর্মচারী, সাংবাদিক, শিক্ষক, আইনজীবি ও সকল ইউনিটের কমিউনিটি পুলিশের সদস্যসহ সুধীজন উপস্থিত ছিলেন।
সমাবেশে প্রধান অতিথি সংসদ সদস্য হাজি মোহাম্মদ ইলিয়াছ বলেন, পেশাগত দায়িত্ব পালনের সময় পুলিশকে অবশ্যই জনগনের সেবকের ভুমিকা পালন করতে হবে। ক্ষেত্র-বিশেষে অপরাধী ও অপরাধের সাথে জড়িতদের সাথে কোন ধরণের আপোষ করতে পারবেনা পুলিশ। তা হলেই জনগনের নিরাপত্তা নিশ্চিত এবং সমাজকে অপরাধমুক্ত করা সম্ভব হবে। তিনি বলেন, পুলিশ ও জনতার মধ্যে সেতুবন্ধন আরো বাড়াতে হবে। পাশাপাশি কমিউনিটি পুলিশের কার্যক্রম আরো গতিশীল করতে হবে। যাতে এলাকায় সকল ধরণের অপরাধ প্রবণতা বন্ধে পুলিশকে সহযোগীতা দেবে কমিউনিটি পুলিশের প্রতিটি ইউনিট।
সমাবেশে এমপি ইলিয়াছ আরো বলেন, পুলিশের সাথে জনতা ও কমিউনিটি পুলিশের পাশাপাশি এলাকার জনপ্রতিনিধিসহ সকলের সমন্বয় থাকলে সমাজ থেকে অপরাধ প্রবণতা নির্মুল করা সময়ের ব্যাপার মাত্র। আমাদেরকে সেই দিকটি লক্ষ্য রেখে কাজ করতে হবে। বিদ্যালয় গুলোর আশপাশে পুলিশের নজরদারি বাড়াতে হবে। যাতে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা (ছাত্রী) ইভটিজারদের কবল না পড়ে। তাঁরা যাতে নিবিঘœ পরিবেশে নিরাপদ ভাবে লেখাপড়া করতে পারে।