পদ্মা সেতুর পিলারে বসেছে প্রথম ‘সুপার স্ট্রাকচার’

jug_59257_1506746912.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক |
স্বপ্নের পদ্মা সেতুর ৩৭ ও ৩৮ নম্বর খুঁটির (পিলার) ওপর প্রথম স্প্যান (সুপার স্ট্রাকচার) বসানো হয়েছে।

ভাসমান ক্রেন দিয়ে স্থাপন করা হয়েছে স্প্যান, যার মাধ্যমে দৃশ্যমান হয়েছে পদ্মা সেতু।

শনিবার সকাল সোয়া ১০টায় ক্রেন দিয়ে পিলারের উচ্চতায় এনে বসানো হয় স্প্যানটিকে। এ সময় সেখানে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের উপস্থিত ছিলেন।

পদ্মা সেতু দ্রুততম সময়ে দৃশ্যমান করার লক্ষ্যে কর্মপরিকল্পনা হাতে নিয়েছে সেতু কর্তৃপক্ষ।

এদিকে ৩৯, ৪০ ও ৪২ নম্বর পিলারের কাজও খুব দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলছে। শিগগিরই ৩৯ ও ৪০ নম্বর পিলারের ওপর স্প্যান বসানো হবে। চারটি পিলারের ওপর মোট তিনটি স্প্যান বসানো হবে।

২০১৫ সালের ডিসেম্বরে পদ্মা সেতুর মূল অবকাঠামো নির্মাণকাজ শুরু হয়। প্রকল্পের প্রায় ৪৭ ভাগেরও বেশি কাজ শেষ হয়েছে। ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এ সেতুতে ৪২ পিলারের ওপর বসবে ৪১টি স্প্যান। সেতু নির্মাণ প্রকল্পে ব্যয় হবে ২৮ হাজার ৭৯৩ কোটি ৩৯ লাখ টাকা। আগামী বছরের ডিসেম্বরে কাজ শেষ হওয়ার কথা রয়েছে।

এ সেতু নির্মাণে ব্যয় হবে ২৮ হাজার ৭৯৩ কোটি ৩৯ লাখ টাকা।