Thursday, December 9, 2021
Homeকক্সবাজার১ লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা সহ সেন্টমার্টিন পরিবহনের বাস জব্দ :...

১ লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা সহ সেন্টমার্টিন পরিবহনের বাস জব্দ : চালক আটক

ডেস্ক রিপোর্ট :

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ফেনী মধ্যম রামপুর এলাকার মোহাম্মদ আলী মিয়ার গ্যারেজ এর সামনে সেন্টমার্টিন পরিবহনের একটি গাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে সাড়ে ৭ কোটি টাকা দামের ১ লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ মোঃ আতিকুল্লাহ (৬৫) নামে সেন্টমার্টিন পরিবহনের চালককে আটক করেছে র‍্যাব।

এসময় সেন্টমার্টিন পরিবহনের একটি বাস (ঢাকা মেট্রো ব-১১-৬৫০৩) জব্দ করা হয়।

আটককৃত আতিকুল্লাহ ঢাকার মিরপুর গাবতলী ই-ব্লকের মৃত আবু বক্কর ছিদ্দিকের ছেলে।

র‌্যাব-৭ চট্টগ্রামের একটি বিশেষ টিম গতকাল (মঙ্গলবার) ভোরে ঢাকাগামী ওই বাসটিকে ধাওয়া করে ফেনীর মধ্যম রামপুরায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে আটক করে। অভিযানকালে বাসটির গতিবিধি সন্দেহজনক হলে র‌্যাব সদস্যরা থামানোর জন্য সংকেত দেয়। এ সময় বাসটি রাস্তার পাশে থামে।

র‌্যাব জানায়, বাসটির চালক মোঃ আতিকুল্লাহ আতিককে সন্দেহ হওয়ায় উপস্থিত যাত্রীদের সামনে তার দেহ তল্লাশী করা হয়। এসময় চালকের পকেটে পাওয়া যায় ২ হাজার পিস ইয়াবা।এসময় তাকে গ্রেফতার করা হয়।পরে তাকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তার দেয়া তথ্য এবং দেখানো মতে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বাসটির ভেতরে থাকা রেফ্রিজারেটরের কমপ্রেশারে মিললো আরও ১ লাখ ৪৮ হাজার ইয়াবা ট্যাবলেট।এরপর বাসটি জব্দ করা হয়। উদ্ধারকৃত ইয়াবা ট্যাবলেটের আনুমানিক মূল্য ৭ কোটি ৫০ লাখ টাকা এবং জব্দকৃত বাসের আনুমানিক মূল্য ১ কোটি টাকা বলে জানায় র‍্যাব।
র‍্যাব-৭ ফেনী ক্যাম্পের অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লিডার শাফায়েত জামিল ফাহিম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার ভোরে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মধ্যম রামপুর এলাকার মোহাম্মদ আলী মিয়ার গ্যারেজ এর সামনে সেন্টমার্টিন পরিবহনের একটি গাড়িতে তল্লাশি করে চালকের পকেটে ২ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়া যায়। পরে তাকে ব্যাপক জিঙ্গাসাবাদের পর সে জানায় গাড়ীর শীতাতপ যন্ত্রের কম্পেসারের ভিতর আরো ইয়াবা আছে। পরে সেখানে তল্লাশী করে আরো ১ লাখ ৪৮ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়া যায়।

জানাগেছে, আতিকুল্লা ইয়াবাগুলো টেকনাফ থেকে ঢাকা নিয়ে যাচ্ছিল। এর আগেও সে এরকম আরো ৬/৭টি চালান ঢাকায় নিয়ে যায়। দৃশ্যত বাস চালক হলেও বাস্তবে তিনি একজন মাদক ব্যবসায়ী।

অভিযানে নেতৃত্ব দেন র‌্যাব কর্মকর্তা স্কোয়াড্রন লীডার শাফায়াত জামিল ফাহিম ও সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মিমতানুর রহমান।

এদিকে সেন্টমাটিন পরিবহনের টেকনাফের ইনচার্জ এরফানুর রহিম জানান, আটক বাসটি টেকনাফ লাইনের বাস নই, এটি কক্সবাজার থেকে ঢাকা যাচ্ছিল।

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments