চকরিয়ায় ছাত্রলীগের মানববন্ধনে উপজেলা চেয়ারম্যান জাফর আলম : জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর খুনি ঘাতকদের বিদেশ থেকে ফিরিয়ে এনে ফাঁসি কার্যকর করতে হবে

Chakaria-Picture-06-08-2017.jpg

এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া :
জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের খুনি ঘাতকদের বিদেশ থেকে দেশে ফিরিয়ে এনে ফাঁসি কার্যকর করার দাবিতে কক্সবাজারের চকরিয়ায় উপজেলা ও পৌরসভা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বিশাল মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল রোববার বেলা ১১টায় কক্সবাজার-চট্রগ্রাম মহাসড়কের চকরিয়া পৌরশহরের প্রধান সড়কে মানববন্ধন শেষে বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্টিত হয়।
চকরিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আরিফুল ইসলাম চৌধুরীর আহবানে অনুষ্ঠিত ছাত্রলীগের বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ প্যানেল চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম লিটু, চকরিয়া উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শহীদুল ইসলাম শহীদ, সাধারণ সম্পাদক কাউছার উদ্দিন কছির, মাতামুহুরী উপজেলা সন্ত্রাস নাশকতা প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক খলিল উল্লাহ চৌধুরী, চকরিয়া পৌরসভা কৃষকলীগের সভাপতি সুলাল কান্তি সুশীল, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মো.হায়দার আলী, চকরিয়া পৌরসভা যুবলীগের সভাপতি হাসানগীর হোছাইন, আওয়ামীলীগ নেতা মিফতাব উদ্দিন চৌধুরী, আমির হোসেন আমু, উপজেলা শ্রমিকলীগের আহবায়ক জামাল উদ্দিন, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন মিঠু, চকরিয়া পৌরসভা ছাত্রলীগের সভাপতি মিজানুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক রানা পারভেজ। এছাড়াও অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে অংশ নেন চকরিয়া উপজেলা ও পৌরসভা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগের নেতাকর্মী ও বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। মানববন্ধন শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাহেদুল ইসলামের দপ্তরে উপস্থিত হয়ে একটি স্বারকলিপি পেশ করেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এসময় উপস্থিত ছিলেন চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী ও মাতামুহুরী উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক চেয়ারম্যান মহসিন বাবুল।
বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথি চকরিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ জাফর আলম বলেন, বাঙালী জাতির অবিসংবাদিত নেতা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন ছিল বাঙালী জাতিকে পাকিস্তানী শাসক গোষ্ঠির পরাধীনতার কবল থেকে উদ্ধার করা। মহান মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে তিনি বলিষ্ট নেতৃত্ব দিয়ে বাংলাদেশকে স্বাধীনতা এনে দিয়েছেন। তার সুযোগ্য উত্তরসুরী দেশরত্ম শেখ হাসিনার সুদক্ষ নেতৃত্বের কারনে বিশ^দরবারে বাংলাদেশের মর্যাদা বৃদ্দি পাচ্ছে। তিনি বলেন, ৭৫ সালের ১৫ আগষ্ট কালোরাতে পাকিস্তানীদের দোসর এদেশের কিছু কুলাঙ্গার ক্ষমতার লোভে জাতির পিতাকে স্ব-পরিবারে হত্যা করে। যা ইতিহাসের জন্য একটি কলঙ্কজনক ঘটনা।
তিনি বলেন, স্বাধীনতার দীর্ঘসময় পর আওয়ামীলীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা রাষ্ট্র ক্ষমতায় এসেই জাতির পিতাকে হত্যার ঘটনায় দায়ের করা মামলাটি সচল করে বাংলার ১৬ কোটি মানুষের বেদনা কিছুটা হলেও মুছে দেয়। ইতোমধ্যে মামলার রায়ে বেশ ক’জন ঘাতকের ফাঁিস নিশ্চিত করা হলেও আইনী ফাঁকফোকরে অনেক ঘাতক এখনো দেশের বাইরে রয়েছে।
উপজেলা চেয়ারম্যান জাফর আলম বলেন, এখন বাংলার ১৬ কোটি মানুষের প্রাণের দাবি অবিলম্বে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের খুনি ঘাতকদের বিদেশ থেকে দেশে ফিরিয়ে এনে ফাঁসি কার্যকর করতে হবে। ইতিহাসের জঘন্যতম এসব ঘাতকদের ফাঁিস নিশ্চিতের মাধ্যমে বাংলাদেশকে কলঙ্কমুক্ত করা এখন সময়ের দাবি।