চকরিয়ায় দশদিনেও উদ্ধার হয়নি অপহৃত ৬ষ্ট শ্রেণির স্কুল শিক্ষার্থী!

Chakaria-Pc-04-08-17..jpg

এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া :
চকরিয়ায় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের অসহায় পরিবারের অপ্রাপ্ত বয়স্ক ৬ষ্ট শ্রেণির এক স্কুল ছাত্রীকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে এক সন্তানের জনক বখাটে। অপহরণের ১০দিন সময় অতিবাহিত হলেও আইন প্রয়োগকারী সংস্থা এখনো ওই শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করতে পারেনি। চকরিয়া পৌরসভার পল্লীবিদ্যুত অফিসের সামনে ঘটেছে এ অপহরণের ঘটনা।
এঘটনায় অপহৃত শিক্ষার্থীর মাতা পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ড তরছঘাটা জলদাশপাড়া গ্রামের দুলাপদ চক্রবর্তীর স্ত্রী অঞ্জনা চক্রবর্তী বাদী হয়ে চকরিয়া থানায় সুমন বৈষ্ণব, বিজয় দাশ, কৃষ্ণ দাশ, পিঠন বৈষ্ণবকে অভিযুক্ত করে থানায় মামলা করেছে।
বাদীর অভিযোগে জানাযায়, তার মেয়ে চকরিয়া সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৬ষ্ট শ্রেণীতে অধ্যায়নরত। তার অপ্রাপ্ত বয়স্ক মেয়ে (বয়স ১৩) প্রতিদিনি স্কুলে আসা যাওয়ার সময় একই এলাকার তুলশী বৈষ্ণবের পুত্র ১সন্তানের জনক বখাটে সন্ত্রাসী সুমন বৈষ্ণব কুটক্তিসহ নানাভাবে উত্যক্ত করে আসছিল। তার বখাটে সুমন বৈষ্ণবের স্ত্রী-সন্তান থাকা সত্ত্বেও অপ্রাপ্ত বয়স্ক স্কুল ছাত্রীকে প্রেম নিবেদনসহ অপহরণের হুমকি দেয়। এ বিষয়টি সুমনের অভিভাবকদের একাধিক বার বলার পরও কোন সুরহা হয়নি। সর্বশেষ গত ২৬ জুলাই বিকাল ৩টায় স্কুলে প্রাইভেট পড়তে আসার পথে মাকে ছুরিকাঘাত করে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে একটি টমটম গাড়ীতে করে অপ্রাপ্ত বয়স্ক স্কুল ছাত্রীকে অপহরণ করে নিয়ে যায় ১সন্তানের জনক বখাটে সুমন বৈষ্ণব।
বাদী অঞ্জনা চক্রবর্তী সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করেন, বিষয়টি স্থানীয় কাউন্সিলর ও থানা পুলিশকে অবহিত করলে কোনরূপ সহযোগিতা না পাওয়ায় আইনী সহায়তার আবেদন করেন জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থা জেলা লিগ্যাল এইড অফিসারের কার্যালয় কক্সবাজারে। সর্বশেষ গত ৩০জুলাই’১৭ইং জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার ও সিনিয়র সহকারী জজ, কক্সবাজার বেগম তাহীদা আক্তার এর নির্দেশনায় ওইদিনই চকরিয়া থানা প্রশাসন মামলা নং ৫৪ (জিআর ৪১১) রুজু করেন। বর্তমানে তার মেয়েকে উদ্ধার করে না দিয়ে উল্টো মামলা প্রত্যাহার করতে হুমকি প্রদর্শন করছে আসামীরা।
মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা চকরিয়া থানার উপপরিদর্শক দেবব্রত রায় বলেন, অপহ্রত স্কুল শিক্ষার্থীকে উদ্ধার ও অপহরণকারীদের গ্রেফতারে বিভিন্ন স্থানে সন্ধান চাওয়া হয়েছে। অপহরণকারীর ব্যবহৃত কল রেকর্ড ও সিডি চাওয়া হয়েছে। খুব শীঘ্রই অবস্থান নিশ্চিত হওয়া যাবে। তারা সম্ভবত চট্টগ্রামেই অবস্থান করছেন। তিনি বলেন, বিষয়টি অপহরণ হয়ে থাকলে দ্রুত সময়ে উদ্ধার করা সম্ভব হবে আর প্রেম সম্পর্কিত হলে তাদের উদ্ধার কিংবা গ্রেফতার করা একটু সময় প্রয়োজন হতে পারে।
চকরিয়া পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র বশিরুল আইয়ুব বলেন, অপ্রাপ্ত বয়স্ক স্কুল ছাত্রীকে ১সন্তানের জনক বখাটে কর্তৃক অপহরণ অত্যন্ত দু:খজনক। তিনি প্রশাসনকে অপহৃত স্কুল ছাত্রীকে উদ্ধারে সহযোগিতা কামনা করেন এবং তিনি সহায়তার আশ^াস দেন। #