টেকনাফে কীটনাশকযুক্ত মশারী বিতরণ উদ্বোধন

Teknaf-Pic-E-09-02-17-400x225.jpg

মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, টেকনাফ:
টেকনাফ উপজেলা পরিষদে আনুষ্ঠানিকভাবে হিতৈষী বাংলাদেশের উদ্যোগে কীটনাশকযুক্ত দীর্ঘস্থায়ী মশারী বিতরণ উদ্বোধন করা হয়েছে।
৯ফেব্রুয়ারী সকাল ১১টায় টেকনাফ উপজেলা পরিষদ চত্বরে কীটনাশকযুক্ত মশারী বিতরণ উপলক্ষ্যে একসভা টেকনাফ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডাঃ সুমন বড়–য়ার সভাপতিত্বে ও হিতৈর্ষী উপজেলা ম্যানেজার জিয়াউল হক সরকারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাফর আহমদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ শফিউল আলম,পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা শ্রæতিপূর্ণ চাকমা।
এতে বক্তারা বলেন ম্যালেরিয়া থেকে মুক্ত থাকতে হলে অবশ্যই কীটনাশকযুক্ত মশারী ব্যবহার জরুরী। ইহা ব্যয় বহুল হলেও এতদাঞ্চলকে ম্যালিরিয়ামুক্ত রাখতে সরকারসহ এনজিওরা উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে কীটনাশকযুক্ত মশারী বিতরন করে যাচ্ছে। এসব মশারী বিক্রি না করে যথাযথভাবে ব্যবহার এবং টাকার বিনিময়ে কাউকে না দিতে উপস্থিত সকল উপকারভোগীদের প্রতি নির্দেশ প্রদান করেন। পরে টেকনাফ পৌরসভার ১নং ওয়ার্ডে উপকার ভোগীদের মধ্যে প্রধান ও বিশেষ অতিথিগন ৫শটি কীটনাশকযুক্ত দীর্ঘস্থায়ী মশারী বিতরণের মাধ্যমে চলতি বছরের মশারী বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন।এসময় উপস্থিত ছিলেন হিতৈষী বাংলাদেশ এর প্রোগ্রাম অর্গানাইজার মিলন বারই,আইসিডিডিআরবির অমিত বনিক,ওয়ানস্টফ ক্রাইসিস সেল এর সুব্রত দাসসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন। টেকনাফ উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নের হিতৈষী বাংলাদেশ নামের এনজিও সংস্থা প্রতি বছর কীটনাশকযুক্ত মশারী বিতরণ করে আসছে। চলতি বছর ৩৫ হাজার কীটনাশকযুক্ত মশারী বিতরণ করা হবে। তম্মধ্যে টেকনাফ পৌরসভায় ৩হাজার ৬শ ৯৫টি, হোয়াইক্যংয়ে ৬হাজার ২শ ৯টি,হ্নীলায় ৬হাজার ২শ ৪৫টি,সদরে ৫হাজার ৯শ ৭৯টি,সাবরাংয়ে ৭হাজার ৮শ ৫৬টি,বাহারছড়ায় ৩হাজার ৪শ ৯টি ও সেন্টমাটিন ইউনিয়নে ১হাজার ৬শ ৭টি মশারী বিতরনের ব্যবস্থা করা হয়েছে।