দুই ভাগ হল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়

bd_gov_37156_1484811226.jpg

‘জননিরাপত্তা বিভাগ’ ও ‘সুরক্ষা সেবা বিভাগ’ নামে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে দুটি ভাগ করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ বৃহস্পতিবার প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

এতে বলা হয়েছে, জননিরাপত্তা বিভাগের অধীনে থাকছে আইনশৃংখলা বাহিনী পরিচালনা ও তদারকি সংক্রান্ত বিষয়।

বাংলাদেশ পুলিশ, বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ, বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী, বাংলাদেশ কোস্টগার্ড, তদন্ত সংস্থা, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল এবং ন্যাশনাল টেলিকমিউনিকেশন মনিটরিং সেন্টার এ বিভাগের আওতাভুক্ত থাকবে।

অন্যদিকে সুরক্ষা সেবা বিভাগের অধীন থাকবে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর, বহিরাগমন ও পাসপোর্ট অধিদফতর, কারা অধিদফতর এবং বাংলাদেশ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদফতর।

জানা গেছে, মুক্তিযুদ্ধকালে ১৯৭১ সালের ১০ এপ্রিল মুজিবনগরে অস্থায়ী সরকার গঠনের মধ্যদিয়ে বাংলাদেশ সরকারের যাত্রা শুরুর সঙ্গে সঙ্গে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের যাত্রা হয়।

যুদ্ধকালে অন্যান্য মন্ত্রণালয়ের মতো স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাজের পরিধি এত ব্যাপক ছিল না। ১৬ ডিসেম্বরের মহান মুক্তিযুদ্ধে বিজয় অর্জনের পর ঢাকায় সচিবালয় স্থানান্তর করা হয়।

সূত্র জানায়, বছরের শুরুতে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে প্রশাসনিক কাজের সুবিধার জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়সহ বড় কয়েকটি মন্ত্রণালয় পুনর্গঠন করতে অনুশাসন দেয়া হয়।

প্রশাসনিক সংস্কারের অংশ হিসেবে মন্ত্রণালয়গুলোকে ভাগ করে প্রতিটিতে তৈরি করা হচ্ছে দুটি করে বিভাগ। প্রতিটি বিভাগের দায়িত্বে একজন সচিব থাকবেন।

সে অনুযায়ী গত বছরের ৩০ নভেম্বর শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে পুনর্গঠন করে দুটি বিভাগ গঠন করা হয়েছে।

এর একটি ‘মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ’, অপরটি ‘কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগ’।