টেকনাফ টুডে ডটকম সম্পাদকের মায়ের মৃত্যুতে সাংবাদিক ইউনিটিসহ বিভিন্ন মহলের শোক

-1.jpg

টেকনাফ টুডে ডটকম সম্পাদক সাংবাদিক নুরুল করিম রাসেলের মায়ের মৃত্যুতে টেকনাফ সাংবাদিক ইউনিটিসহ বিভিন্ন মহল শোক জ্ঞাপন করেছেন।

টেকনাফ সাংবাদিক ইউনিটি

মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক, মুক্তিযুদ্ধের সংগ্রাম কমিটির সদস্য সচিব ও অবসর প্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মাষ্টার এম এ শুকুরের সহধমির্নী এবং টেকনাফ টুডে ডটকম সম্পাদক সাংবাদিক নুরুল করিম রাসেলের মা বেগম রোকেয়া পদক প্রাপ্ত খালেদা বেগম এর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ ও মরহুমার রুহের মাগফেরাত কামনা করে ও শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করে বিবৃতি দিয়েছেন টেকনাফ সাংবাদিক ইউনিটি। বিবৃতিদাতারা হলেন, সভাপতি নুরতাজুল মোস্তফা শাহীনশাহ, সহ-সভাপতি জিয়াবুল হক, সহ-সভাপতি ছৈয়দুল আমিন চৌধুরী, সাধারণ স¤পাদক গিয়াস উদ্দিন ভুলু, সাংগঠনিক স¤পাদক নুরুল হোছাইন, যুগ্ন স¤পাদক হেলাল উদ্দিন, সহ-সাংগঠনিক স¤পাদক জসিম মাহমুদ, অর্থ স¤পাদক মো. সেলিম, দপ্তর ও প্রচার স¤পাদক সাইফুদ্দীন মোহাম্মদ মামুন, ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক স¤পাদক আবুল আলী, নির্বাহী সদস্য, এম. আব্দুল হক, মো.আলম শাহীন, আবছার কবির আকাঁশ, মাহফুজুর রহমান, এম.আমান উল¬াহ, সাধারণ সদস্য হেলাল উদ্দিন, মো.সেলিম, মো. শাহজাহান, হারুন সিকদার, মো. রাশেদুল করিম, আমান ওয়াহিদ, এটিএন ফায়সাল, মোস্তফা কামাল চৌধুরী, জসিম উদ্দিন টিপু, জেড করিম জিয়া, আবদুল কাইয়ুম, নুর হাকিম আনোয়ার, আবদুর রহমান, সাইফুল ইসলাম সাইফী, গিয়াস উদ্দিন, মুহাম্মদ ছিদ্দিকুর রহমান, মমতাজুল ইসলাম মনু, হাফেজ মুহাম্মদ কাশেম প্রমূখ।

টেকনাফের স্বনামধন্য সিনিয়র সাংবাদিক নুরুল করিম রাসেলের মা আর নেই, তার মৃত্যুতে রেডিও নাফ একলাবসহ বিভিন্ন মহলের শোক প্রকাশ
সাইফুদ্দীন মোহাম্মদ মামুন, টেকনাফ উপজেলা প্রতিনিধি
টেকনাফ উপজেলার স্বনামধন্য সিনিয়র সাংবাদিক ঢাকার দৈনিক যুগান্তর, স্যাটেলাইট চ্যানেল মোহনা টেলিভিশন, চট্রগ্রামের দৈনিক সাঙ্গু, কক্সবাজারের দৈনিক আজকের দেশবিদেশের টেকনাফ প্রতিনিধি, টেকনাফ প্রেস ক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক একেএম নুরুল করিম রাসেলের “মা” আলহাজ্ব খালেদা বেগম (৬৫) আর নেই। ইন্নালিল্লাহে ওয়াইন্না ইলাইহি রাজিউন। তিনি মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন সময়ে টেকনাফে নারী জাগরনের অন্যতম প্রতিকৃৎ ছিলেন। বার্ধক্যজনিত রোগে তিনি চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন ছিলেন। রবিবার ১৫ জানুয়ারি সকাল সাড়ে ৮ টার সময় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ কাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তিনি মুক্তিযোদ্ধা ও টেকনাফ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক আবদুস শুক্কুর এর সহধর্মীনি। মৃত্যুকালে স্বামী, তিন ছেলে ও ৪ কন্যাসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে পরকালে চলে যান। মরহুমার অপর দুই পুত্রের মধ্যে একজন নামকরা নবজাতক ও শিশু স্পেশায়ালিস্ট ডাঃ একেএম রেজাউল করিম ও অপরজন টেকনাফ পৌর যুবলীগ সভাপতি একেএম মন্জুরুল করিম সোহাগ। এ ব্যাপারে সাংবাদিক নুরুল করিম রাসেলের সাথে যোগাযোগ করলে জানায়, মরহুমার(আম্মার) মরদেহ টেকনাফের অলিয়াবাদস্থ নিজ বাসভবনে চট্টগ্রাম থেকে আনা হচ্ছে। পরে এশার নামাজের পরে তার(আম্মার) নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হবে বলে সে জানায়। তার মৃত্যুতে সম্প্রচার গণমাধ্যম কমিউনিটি রেডিও নাফ ৯৯.২ এফএম একলাব পরিবার,টেকনাফ সাংবাদিক ইউনিটি পরিবার, কক্সবাজারের দৈনিক রুপালী সৈকত পত্রিকার পরিবার ও ঢাকার দৈনিক তৃতীয় মাত্রা পত্রিকার পরিবার গভীর শোক ও সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছে।