ফের ডুবোচরে আটকা সেন্টমার্টিন রুটের ৩ জাহাজ, দুই ঘন্টা বিলম্বে পৌঁছল যাত্রীরা : বেখবর নৌ চলাচল কর্তৃপক্ষ

Teknaf-st-pickearysinbad-05.jpg

নুরুল করিম রাসেল, টেকনাফ টুডে ডটকম ::
ফের ডুবোচরে আটকা পড়ে ২ ঘন্টা বিলম্বে গন্তব্যে পৌঁছেছে সেন্টমার্টিন নৌ রুটে চলাচলকারী জাহাজের যাত্রীরা। শনিবার (১৪ জানুয়ারী) টেকনাফ সেন্টমার্টিন নৌরুটে চলাচলকারী ৩ টি জাহাজ কেয়ারী সিন্দবাদ, কেয়ারী ক্রুজ এন্ড ডাইন ও এলসিটি কুতুবদিয়া সেন্টমার্টিনের কাছে সাগরের ডুবোচরে আটকা পড়ে। ফলে দুই ঘন্টা বিলম্বে সন্ধা ৭টার দিকে জাহাজের যাত্রীরা টেকনাফের দমদমিয়া ঘাটে পৌঁছে।

কেয়ারীর ইনচার্জ শাহ আলম জানান, ভাটার কারনে আধ ঘন্টা বিলম্বে সাড়ে ৩টায় সেন্টমার্টিন হতে জাহাজ ছাড়ার কিছুক্ষন পর সাগরের ডুবোচরে কেয়ারীর দুটি জাহাজ আটকে যায়। পরে জোয়ারে জাহাজ দুটি ভেসে উঠলে ফের যাত্রা করে রাত ৭টায় টেকনাফ পৌঁছে।
তিনি জানান, সাগরের চ্যানেল ভরাট হয়ে যাওয়া ও চ্যানেলে কোন বয়া না থাকায় প্রায় জাহাজ গুলি ডুবোচরে আটকে যাচ্ছে।

একই ভাবে এলসিটি কুতুবদিয়া জাহাজটিও ডুবোচরে আটকে যায়। পরে সেটিও দুই ঘন্টা বিলম্বে টেকনাফে পৌঁছে।

অপরদিকে এলসিটি কাজল ডুবোচরে আটকে যাওয়ার ভয়ে প্রায় দুই ঘন্টা বিলম্বে সেন্টমার্টিন হতে ছেড়ে আসে। রাত সোয়া ৭টার দিকে সেটিও দমদমিয়া ঘাটে পৌঁছে। ০

কয়েকদিন আগে সেন্টমার্টিন যাওয়ার পথে কাজল জাহাজটি আটকে গিয়ে ভোগান্তিতে পড়েছিল যাত্রীরা।

এছাড়া গত কয়েক বছর ধরে বয়া না থাকায় পর্যটকবাহী জাহাজ গুলি সেন্টমার্টিন রুটে ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করলেও নৌ চলাচল কর্তৃপক্ষের কোন তদারকি না থাকায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে সেন্টমার্টিন ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ জানান, সেন্টমার্টিন চ্যানেলের বঙ্গোপসাগরে কয়েকদিন পর পর জাহাজ গুলি আটকে যাচ্ছে। ফলে ভ্রমণে আসা পর্যটকদের আনন্দের পরিবর্তে বিষাদ নিয়ে ফিরে যাচ্ছে। এভাবে চলতে থাকলে সেন্টমার্টিন পর্যটকদের আকর্ষন হারাতে পারে বলে মনে করেন তিনি।
এব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে তিনি নৌ চলাচল কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন করেন।