বিক্ষোভের মুখে সুচির ইন্দোনেশিয়া সফর বাতিল

su-kyi_32279_1480346526.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক |
মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে সংখ্যালঘু মুসলিম রোহিঙ্গাদের ওপর দেশটির সেনাবাহিনী নতুন করে দমন-পীড়ন চালাচ্ছে।

এর প্রতিবাদে ইন্দোনেশিয়াসহ বিভিন্ন দেশে ব্যাপক প্রতিবাদ বিক্ষোভ হচ্ছে। ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় মিয়ানমার দূতাবাসে জনতা হামলাও করেছে।

রোহিঙ্গা ইস্যুতে ইন্দোনেশিয়ায় এই উত্তেজনার মধ্যেই সাম্প্রতিক দিনগুলোতে জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) প্রতি সহানুভূতিশীল বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, তারা জাকার্তায় মিয়ানমারের দূতাবাসসহ কয়েকটি ভবনে হামলার সন্দেহভাজন পরিকল্পনাকারী।

এছাড়া রোহিঙ্গা মুসলিমদের নির্বিচারে হত্যা ও ক্রমাগত নিপীড়নের প্রতিবাদে ইন্দোনেশিয়ায় মিয়ানমারের দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ করেন ইবনে খালদুন বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা।

এ পরিপ্রেক্ষিতে সোমবার মিয়ানমারের নোবেল জয়ী নেত্রী অং সাং সুচি তার ইন্দোনেশিয়া সফর স্থগিত করেছেন। খবর এএফপির।

ইন্দোনেশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র কিয়াও জাইয়া বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যুতে এখানে বিক্ষোভ হয়েছে। আগামী শুক্রবারও জাকার্তায় বিক্ষোভ কর্মসূচির ডাক দেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, ওইদিনই সু চির ইন্দোনেশিয়া সফরে আসার কথা ছিল। বিক্ষোভের কারণে সু চি তার সফর স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

গত ৯ অক্টোবর মিয়ানমার সেনাবাহিনী রাখাইনে রোহিঙ্গাদের ওপর ব্যাপক নির্যাতন চালাচ্ছে। তারা নারীদের ধর্ষণ, হত্যা এবং বাড়িঘর জ্বালিয়ে দিয়েছে।

প্রাণ ভয়ে হাজারো রোহিঙ্গা সীমান্ত পার হয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করেছে। জাতিসংঘ এটিকে ‘জাতিগত হত্যা’ বলে উল্লেখ করেছে।

কিন্তু রোহিঙ্গা ইস্যুতে বরাবরের মতো সুচি নিশ্চুপ রয়েছেন। এর ফলে শান্তিতে পাওয়া তার নোবেল ফিরিয়ে নেয়ার জন্য লাখো মানুষ এক পিটিশনে স্বাক্ষর করেছেন।