এমপি বদি জামিনে মুক্তি দোয়া,আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরন

pic-16-11-16.jpg

মুহাম্মদ জুবাইর, টেকনাফ::
অবশেষে সব জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে আবার ও এমপি বদি জামিনে মুক্তি হয়েছেন।দুর্নিতির দায়ে কারারন্তীন হওয়ার ১৫ দিনের মাথায় জামিন পেয়েছেন কক্সবাজার-৪ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনের সরকার দলীয় সংসদ সদস্য আবদুর রহমান বদি(সিআইপি)।বুধবার (১৬ নভেম্বর) দুপুরে বিজ্ঞ বিচারপতি মো. রুহুল কুদ্দুসের হাইকোর্ট বেঞ্চ শুনানী শেষে ৬ মাসের অন্তর্ব্তীকালীন জামিন মঞ্জুর করেন।আপিল আবেদন আদালতে উপস্থাপনের সময় বদির জামিনের আবেদন জানান তার আইনজীবী নাসরিন সিদ্দিকা লীনা।জামিনের খবরে স্বস্থি এসেছে এমপি বদির নির্বাচনী এলাকায় দলীয় নেতাকর্মীদের পাশাপাশি সাধারণ মানুষের মাঝে। এনিয়ে টেকনাফের সর্বত্রে চলছে দোয়া,আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরনের উৎসব।
জানা যায় বুধবার (১৬ নভেম্বর)আপিল আবেদন আদালতে শুনানী শেষে এমপি বদিকে ৬ মাসের জন্য অন্তর্বতীকালীন জামিন দেন বিজ্ঞ বিচারক।
একই সঙ্গে বিচারিক আদালতের ১০ লাখ টাকা জরিমানাও স্থগিতাদেশ দিয়েছে আদালত।শুনানীকালে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পক্ষে ছিলেন খুরশীদ আলম খান।উল্লেখ্য সম্পদের তথ্য গোপনের দায়ে গত ২ নভেম্বর এমপি আবদুর রহমান বদিকে ৩ বছরের কারাদন্ডাদেশ দেন ঢাকার তৃতীয় বিশেষ জজ আবু আহমেদ জমাদারের আদালত। একই সঙ্গে ১০ লাখ টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও তিনমাসের কারাদন্ডাদেশ ছিল বদির বিরুদ্ধে।সম্পদের তথ্য গোপন ও অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে পৃথক দু’টি ধারায় মামলাটি করেছিল দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। তবে অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগের ধারাটি আদালতে প্রমাণিত হয়নি এমপি বদির বিরুদ্ধে।২০১৪ সালের ২১ আগস্ট এমপি আবদুর রহমান বদির বিরুদ্ধে রমনা থানায় মামলাটি করেন দুদকের উপ-পরিচালক আবদুস সোবহান।জ্ঞাত আয়বহির্ভুত সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের অভিযোগে এমপি বদির বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) ২০১৪ সালের ২১ আগস্ট বদির বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেয় দুদক।এতে বলা হয়, সার্বিক তদন্তে আবদুর রহমান বদি তার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত ১০ কোটি ৮৬ লাখ ৮১ হাজার ৬৬৯ টাকা মূল্যমানের সম্পদ গোপন করে মিথ্যা তথ্য দিয়েছেন। জামিনে মুক্তির সংবাদ পেয়ে তাৎক্ষনিক টেকনাফ সদর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ শাহজাহান মিয়া মার্শালের নেতৃত্বে পৌর এলাকায় একটি আনন্দ মিছিল প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন শেষে উপজেলা আওয়মী লীগ কার্যালযে এসে বিশেষ দোয়ায় অংশগ্রহন করে।এমপি বদি মুক্তি আন্দোলনে যারা রাজপথে মিছিল সমাবেশ,মানববন্ধন,দোয়া করেছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন এমপির ছোট ভাই টেকনাফ পৌর প্যানেল মেয়র-১ মাওঃ মুজিবুর রহমান।