হোয়াইক্যং নয়াবাজার এলাকায় অস্ত্রধারী এক ইয়াবা ব্যবসায়ীর ভয়ে আতংক

armsyaba.jpg

বার্তা পরিবেশক |
টেকনাফের হোয়াইক্যং নয়াবাজার পূর্ব সাতঘরিয়া পাড়া এলাকায় অস্ত্রধারী এক ইয়াবা ব্যবসায়ীর ভয়ে আতংকিত হয়ে পড়েছে গোটা এলাকা। কথায় কথায় অবৈধ অস্ত্র নিয়ে লোকজনকে ধাওয়া করা, গুলিবর্ষন করে ভীতিকর অবস্থা সৃষ্টি করা ও নিরীহ লোকজনকে মারধর করা তার নিত্য নৈতিত্তিক ব্যাপার হয়ে দাড়িয়েছে। তাকে এখনই আইনের আওতায় এনে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার না করলে যে কোন সময় আরো বড় ধরনের কোন ঘটনা ঘটিয়ে ফেলবে এ আশংকা তাদের।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, হোয়াইক্যং পূর্ব সাতঘরিয়া পাড়া এলাকার নুরুল ইসলামের ছেলে হাবিব(২৮) প্রায় প্রতিরাতে অবৈধ অস্ত্র দিয়ে ফাঁকা গুলি বর্ষন করে এলাকায় আতংক সৃষ্টি করে যাচ্ছে।
ইয়াবা ব্যবসা করে অল্পদিনে সে কোটিপতিতে পরিনত হওয়ায় কোন কিছুর তোয়াক্কা করছে না। কথায় কথায় তার অবৈধ অস্ত্র দিয়ে লোকজনকে মারধর করে থাকে। এলাকায় তার একটি নিজস্ব বাহিনীও নাকি রয়েছে। আর এই বাহিনীর হাতে অত্যাধুনিক বেশ কয়েকটি অবৈধ অস্ত্র থাকতে পারে বলে এলাকাবাসী মনে করেন। এভাবে ইতিমধ্যে অনেকে তার নির্যাতনের স্বীকার হলেও আরও বেশী হয়রানি নির্যাতনের ভয়ে কেউ প্রতিবাদ করতে পারছেনা বলে জানিয়েছে ভূক্তভোগী অনেকে। এমনকি তারা থানা পুলিশ বা কোথাও অভিযোগ দিতেও ভয় পাচ্ছে।
জানা গেছে, এই ইয়াবা ব্যবসায়ী হাবিব সম্প্রতি অর্ধ কোটি টাকা খরচ করে আলিশান ভবন নির্মাণ করেছে। অথচ তার দৃশ্যত কোন ব্যবসাও নাকি নেই। অপরদিকে তার পিতা ছিল সামান্য পোনা ব্যবসায়ী। এছাড়া জামায়াতের রাজনীতির সাথে ও নাকি জড়িত ছিল তার পিতা। আবার তার হেফাজতে অবৈধ অস্ত্র থাকার তথ্য নাকি এলাকায় উপেন সিক্রেট।
এব্যাপারে হোয়াইক্যং পুলিশ ফাঁড়ীর ইনচার্জ এসআই শাফায়েত আহমদের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, অবৈধ অস্ত্রধারীদের কোন ছাড় নেই, এব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।