দুদকের মামলায় এমপি বদির সাজার খবরে উখিয়া-টেকনাফে মিছিল-সড়ক অবরোধ

Untitled-1-copy.jpg

কায়সার হামিদ মানিক,উখিয়া ও রাশেদ মাহমুদ রাসেল, টেকনাফ |
দুদকের মামলায় উখিয়া টেকনাফের আলোচিত এমপি আবদুর রহমান বদির আদালত কতৃক সাজা হওয়ার খবরে উখিয়া-টেকনাফে সড়ক অবরোধ করে দলীয় নেতাকমীরা।
কক্সবাজার-টেকনাফ সড়কের ফলিয়াপাড়া ব্রিজের উপর কাঠের গুড়ি ফেলে ও টায়ারে আগুন দিয়ে নেতাকর্মীরা দুপুর ২ টা অবরোধ চালিয়ে যায় নেতাকর্মীরা। বদির পক্ষে বিভিন্ন শ্লোগান দেয় নেতাকর্মীরা। পরে অবশ্য যথাযথ কতৃপক্ষের সাথে কথা বলা আশ্বাসের পরিপ্রেক্ষিতে অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়। এতে কক্সবাজার-টেকনাফ সড়কের দু’পাশে শত শত যানবাহন আটকা পড়ে। ঘটনাস্থলে উখিয়া থানার ওসি (তদন্ত) কায় কিসলু গিয়ে নেতাকর্মীদের সাথে দীর্ঘক্ষণ কথা বলেও অবরোধ প্রত্যাহার করতে পারেননি। উল্টো পুলিশের সামনেই নেতাকর্মীরা বদির পক্ষে শ্লোগানে শ্লোগানে মুখরিত করে রাখে রাজপথ। শেষ পর্যন্ত উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মাঈন উদ্দিনের প্রচেষ্টা ও উধ্বর্তন কর্তপক্ষের সাথে আশ্বাসের পরিপ্রেক্ষিতে অবরোধ প্রত্যাহার করে নেন নেতাকর্মীরা।
এ ব্যাপারে উখিয়া আওয়ামীলীগের নেতা হুমায়ুন কবির চৌধুরীর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, পরীক্ষার কারনে আমার তৎক্ষনাৎ কোন প্রতিবাদ করিনি। আবদুর রহমান বদি উখিয়া টেকনাফের গনমানুষের প্রিয়মুখ, গরীব দরদী নেতা। তাকে অন্যায়ভাবে সাজা দেয়া হয়েছে। স্থানীয় জনতা দুপুরের পর তাই ব্যাপক বিক্ষোভ প্রদর্শন করে এবং উখিয়া-টেকনাফ সড়ক অবরোধ করে রাখে।
পরে উর্ধ্বতন কতৃপক্ষের সাথে এ ব্যাপারে আলাপ করা হবে ইউএনও মাঈন উদ্দিনের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে বেলা সাড়ে ৩ টার দিকে অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়।
copy-of-teknaf-picmpbodi_2_02-11-16
অপরদিকে বিকাল ৩টার দিকে উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ের সামনের প্রধান সড়কে বদি সমর্থক কয়েক যুবক সড়কে ঠেলাগাড়ি দিয়ে ব্যারিকেড সৃষ্টি করে। কিছুক্ষন পর টেকনাফ থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌঁছলে ব্যারিকেড সৃষ্টিকারীরা সটকে পড়ে।
copy-of-teknaf-picmp-bodi_1_
এর আগে দুপুর ১২টার দিকে উপজেলা আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি জহির হোসেন ও পৌর আওয়ামীলীগ সা: সম্পাদক মো: আলম বাহাদুরের নেতৃত্বে একটি প্রতিবাদ মিছিল পৌর শহর প্রদক্ষিন করে।