হোয়াইক্যংয়ে প্রয়াত প্রফেসর শামসুল আলমের দ্বিতীয় মৃত্যু বার্ষিকী পালন : ছাত্রদের উদ্যেগে কবর জিয়ারত

unnamed-17.jpg

রাশেদুল হক, হোয়াইক্যং |
টেকনাফ ডিগ্রী কলেজের বাংলা বিভাগের প্রয়াত প্রফেসর শামসুল আলম স্থানীয় কিছু সন্ত্রাসীদের হাতে নির্মম ভাবে খুন হন । আজ ৩১ অক্টোবর সোমবার দুপুরের নামাজের পর খারাংখালী কবরস্থানে গিয়ে স্থানীয় ছাত্ররা প্রয়াত প্রফেসর শামসুল আলমের দ্বিতীয় মৃত্যু বার্ষিকীতে কবর জিয়ারত করেন। প্রয়াত প্রফেসর শামসুল আলম টেকনাফের হোয়াইক্যং খারাংখালীর মৃত হাজ্বী ফজল করিমের পুত্র। তিনি গত ২০১৪ সালের ৩১ অক্টোবর স্থানীয় সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের আঘাতে মৃত্যু বরণ করেন।
কবর জিয়ারতের সময় উপস্থিত ছিলেন,খারাংখালী ক্রীড়া পরিষদের সভাপতি শামসুল আলম আমিন,হোয়াইক্যং ইউনিয়ন দক্ষিণ শাখা ছাত্রলীগের আহবায়ক ও ক্রীড়া পরিষদের সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন মুন্না,যুগ্ন আহবায়ক রবিউল আলম,হোয়াইক্যং ইউনিয়ন উত্তর শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রাশেদুল হক রাশেদ,ক্রীড়া পরিষদের যথাক্রমে সাইফুল ইসলাম আবির,সাইফুল হক ইব্রাহিম শহিদুল্লাহ,অবুঝ,কবির আহমদ,আব্দুল মন্নান,আবছার,মানিক সহ অন্যান্য ছাত্র ও স্থানীয় আত্মীয় স্বজন।কবর জিয়ারতের পর মরহুমের বাড়িতে গিয়ে শোকসন্তপ্ত পরিবারে প্রতি সমেবেদনা জানায়। ছাত্ররা সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কাছে প্রয়াত প্রফেসর শামসুল আলমের খুনিদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তির দাবী জানান।