পেকুয়ার শিলখালী ও বারবাকিয়ায় ১০টাকা মূল্যের চাল বিতরনের উদ্বোধন

Untitled-2.jpg

এস.এম.ছগির আহমদ আজগরী;পেকুয়া |
কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার শিলখালী ইউনিয়নে সরকার প্রবর্তিত হতদরিদ্রদের জন্য ১০টাকা মূল্যের চাউল বিতরনের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। গতকাল ৪অক্টোবর মঙ্গলবার বিকাল ৩টায় স্থানীয় জারুলবনিয়া ষ্টেশন চত্বরে ডিলার মোঃ শফিউল আলমের দোকানে এ উদ্বোধন অনুষ্টান সম্পন্ন্য হয়। গ্রামের টেক অফিসার পেকুয়া উপজেলা এল.জি.ই.ডি প্রকৌশলী মোঃ জাহেদুল ইসলাম চৌধুরী স্বল্প মূল্যের এ চাউল বিতরণী অনুষ্টানের উদ্বোধন করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, শিলখালী ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ¦ মোঃ নুরুল হোসাইন, উপজেলা এল.জি.ই.ডি’র সহকারী প্রকৌশলী বাবু হারু কুমার পাল, প্যানেল চেয়ারম্যান আবদুল আউয়াল এমইউপি, মোঃ আবু তাহের এমইউপি, আবু ছিদ্দিক এমইউপি, ছেনুয়ারা বেগম পুতু এমইউপি, আহমদ ছবি এমইউপি, সাংবাদিক ছগির আহমদ আজগরী, যুবলীগ নেতা রেজাউল করিম চৌধুরী প্রমুখ। এদিকে, হতদরিদ্রদের জন্য সরকারের প্রবর্তিত ১০টাকা মূল্যের চাউলের উপকারভোগী নির্বাচনে নানা অসঙ্গতি অনিয়ম টানাপোড়ন ও কার্ডের ঘষামাজায় নাম পরিবর্তন সহ নানা অভিযোগের গুঞ্জন জনশ্রুতি পাওয়ায় বিষয়টি নিয়ে অনুসন্ধানী প্রতিবেদনে সংশ্লিষ্ট সকলের দৃষ্টি আকর্ষন করেছে স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মীরা। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মারুফুর রশিদ খান শিলখালীতে হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে ১০টাকা মূল্যের চাউল বিতরনের শুভ উদ্বোধনের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, শিলখালীতে ১হাজার হতদরিদ্র পরিবার সরকারী এ সূযোগ পাবে বলে মন্তব্য করেন।

পেকুয়ায় বারবাকিয়ায় ১০টাকা মুল্যে চাল বিতরন

পেকুয়ায় বারবাকিয়া ইউনিয়নে ১০টাকা মুল্যের চাল বিতরন কর্মসুচি সুচনা করা হয়েছে। গতকাল সোমবার সকাল ৯টায় বারবাকিয়া ইউনিয়নের পুর্ব জালিয়াকাটা ব্রীজ সংলগ্ন স্থানে ওই কর্মসুচির শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। ওইদিন সকালে বারবাকিয়া ইউপির প্যানেল চেয়ারম্যান আনিসুল করিম এ কর্মসুচির শুভ উদ্বোধন করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আ’লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক মুফিজুর রহমান, বারবাকিয়া ইউনিয়ন আ’লীগ সাধারন সম্পাদক কামাল হোসেন, আ’লীগ নেতা শফিকুর রহমান, ছাত্রলীগ নেতা শওকত হোসেন, জাহিদ সাঈদ প্রমুখ। একইদিন সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বারবাকিয়া বাজারে ১০টাকা মুল্যের চাল বিতরনের পৃথক কর্মসুচির উদ্বোধন করা হয়েছে। জানা গেছে সরকারের খাদ্য অধিদপ্তর পরিচালিত স্বল্প মুল্যে খাদ্য শস্য বিতরন কর্মসুচির আওতায় এ ইউনিয়নে ১১৩০পরিবারকে উপকারভোগি হিসেবে অর্ন্তভুক্ত করা হয়েছে। এ ইউনিয়নের পুর্ব জালিয়াকাটা ব্রীজ সংলগ্ন স্থান ও বারবাকিয়া বাজারে পৃথক দু’টি পয়েন্ট থেকে চাল হতদরিদ্রদের মাঝে বিলি করা হচ্ছে।