হ্নীলায় ডাকাতের প্রহারে আহত হোটেল শ্রমিকের মানবেতর জীবন যাপন

Teknaf-Pic-03-10-162222.jpg

জামাল উদ্দিন, হ্নীলা |
টেকনাফের হ্নীলায় গত ২৮ আগষ্ট দিবাগত রাত সাড়ে ১১টার দিকে হ্নীলা বাস ষ্টেশনস্থ হোটেল চম্পার শ্রমিক হ্নীলা মৌলভীবাজার মুসলিম পাড়ার আবদুস সালামের পুত্র মোঃ আবদুল গফুর প্রকাশ কালু হ্নীলা হতে রিক্সা যোগে বাড়ী ফেরার পথে এসিআই লবণ গোডাউনের সামনে অতর্কিত ডাকাতের মারধরের শিকার হয়ে বাম হাত ভেঙ্গে যায়। এতে হোটেল শ্রমিক বর্তমানে মানবেতর জীবন যাপন করছে বলে অভিযোগ তার। গরীবের ঘরে জন্ম হওয়ায় মারধরের পর থেকে ভাঙ্গা হাতের প্রয়োজনীয় কোন চিকিৎসা দিতে না পেরে সে মানুষের ধারে ধারে হাত পাতছে। তার জনম দুঃখিনী মাকে নিয়ে সে বর্তমানে টেকনাফের বিভিন্ন ষ্টেশন ও দোকানপাটে বিত্তশালীদের কাছে ধর্ণা দিচ্ছে। সারাদিনে হাত পেতে যে টাকা গুলো পায় তা দিয়ে কি সে চিকিৎসা খরচ দেবে না পরিবার চালাবে। অধিকন্তু পরিবারে রয়েছে তার এক মা, স্ত্রী ও ছোট ছোট ৪ সন্তান। সকলেই উপার্জনে সক্ষম নয়। বর্তমানে সে তার চিকিৎসা খরচ যোগাতে ও পরিবার চালাতে বিষম ভাবে কষ্টে আছে বলে জানান সে। তার ভাঙ্গা হাতটি ভাল করতে এলাকার বিত্তশালীদের সহায়তা কামনা করেছেন। এদিকে এলাকার একটি প্রভাবশালী মহলের ইন্ধনে ঘটনায় জড়িত একই এলাকার দরবেশ আলীর পুত্র জামাল হোছাইন ও দক্ষিণ পাড়া এলাকার ভুলু তাকে প্রাণে মারার উপর্যুপুরি হুমকি ধমকি দিচ্ছে বলেও অভিযোগ তার পরিবারের। এ ব্যাপারে প্রশাসনের সহায়তা কামনা করেছে সে। উল্লেখ্য যে, উক্ত ঘটনায় তাকে বাঁচাতে গিয়ে একই এলাকার নুর আহমদের পুত্র রিক্সাচালক মোহাম্মদ কাশেম ডাকাতদলের হামলায় নিহত হন।