দৈনিক গণসংযোগকে সংবাদপত্র এবং সাংবাদিকদের মর্যাদা পুনরুদ্ধারে ভূমিকা রাখতে হবে

images.jpg

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি |
কক্সবাজারের নতুন সংবাদপত্র দৈনিক গণসংযোগ এর প্রকাশনা উপলক্ষে এক মতবিনিময় সভায় বক্তারা বলেছেন, কক্সবাজার জেলায় সংবাদপত্র এবং সাংবাদিকের সংখ্যা বাড়লেও মর্যাদার স্থানে যথেষ্ট ঘাটতি তৈরি হয়েছে। তাই সংবাদপত্র এবং সাংবাদিকদের মর্যাদা পুনরুদ্ধার এখন জরুরী হয়ে পড়েছে। নতুন প্রকাশিতব্য সংবাদপত্র দৈনিক গণসংযোগকে এই মর্যাদা পুনরুদ্ধারে ভূমিকা রাখতে হবে। কক্সবাজার প্রেসক্লাবে ৩ অক্টোবর সকালে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় বক্তারা আরো বলেন, জেলায় অনেকগুলো সংবাদপত্র থাকলেও মননশীল পাঠকের জন্য এখনও শূণ্যতা রয়েছে। পাঠকের এই শূণ্যতা পূরণেও ভূমিকা রাখতে পারে দৈনিক গণসংযোগ।
দৈনিক গণসংযোগ এর প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক জসিম উদ্দিন কিশোরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন কক্সবাজার পৌরসভার সাবেক মেয়র ও আওয়ামীলীগ নেতা নুরুল আবছার। এতে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কক্সবাজারের সিনিয়র সাংবাদিক মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম, ফজলুল কাদের চৌধুরী, মমতাজ উদ্দিন বাহারী, কামাল হোসেন আজাদ, এজিএম আশেক উল্লাহ, হাসানুর রশিদ, মোহাম্মদ জোনাইদ, আবদুল আজিজ, ইমাম খাইর, আনোয়ার হাসান চৌধুরী, সোহরাব হোসাইন চৌধুরী, এম আর মাহমুদ, বিশিষ্ট লেখক ও কবি রুহুল কাদের বাবুল, নিরাপদ সড়ক চাই কক্সবাজার জেলা শাখার সেক্রেটারী খলিল উল্লাহ চৌধুরী, ফরিদুল আলম, মোঃ ইসহাক, এনজিও কর্মকর্তা জসিম উদ্দিন সিদ্দিকী প্রমুখ।
উল্লেখ্য, কক্সবাজারের সিনিয়র সাংবাদিক জসিম উদ্দিন কিশোরের প্রকাশনায় নতুন একটি সংবাদপত্র দৈনিক গণসংযোগ সম্প্রতি অনুমোদন পেয়েছে। পত্রিকাটি দ্রুত বাজারে আসছে। কক্সবাজার থেকে দীর্ঘ ২০ বছর ধরে জসিম উদ্দিন কিশোরের প্রকাশনায় পাক্ষিক মেহেদী প্রকাশিত হয়ে আসছে।