পেকুয়ায় উজানটিয়ায় স্বল্প মুল্যে খাদ্য শস্য বিতরন কর্মসুচির উদ্বোধন

123.jpg

পেকুয়া সংবাদদাতা |
পেকুয়ায় উজানটিয়া ইউনিয়নে স্বল্প মুল্যে খাদ্য শস্য বিতরন কর্মসুচির শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। গতকাল শনিবার সকাল ১০টায় সোনালী বাজারে হতদরিদ্রদের মাঝে সরকারের খাদ্য অধিদপ্তর কর্তৃক পরিচালিত ওই কর্মসুচির কার্যক্রম উদ্বোধন করা হয়েছে। এ লক্ষ্যে এক আলোচনা সভা অনুষ্টিত হয়। উজানটিয়া ইউপির চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও প্যানেল চেয়ারম্যান ইউনিয়ন আ’লীগ সাধারন সম্পাদক শাহ জামালের সঞ্চালনায় অনুষ্টিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মারুফুর রশিদ খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ কমিটির উপজেলা সভাপতি এস,এম গিয়াস উদ্দিন, সদস্য সচিব ও উপজেলা আ’লীগ সাধারন সম্পাদক আবুল কাসেম। এদিকে ১০টাকা মুল্যে খাদ্য শস্য বিতরন কর্মসুচির আওতায় এ ইউনিয়নে ৯২১জনকে তালিকাভুক্ত করা হয়েছে। উজানটিয়া ইউনিয়নের দু’টি পয়েন্টকে বাছাই করা হয়। ওই দু’টি মোকাম থেকে উপকারভোগিদের মাঝে খাদ্যশস্যের যোগান নিশ্চিত করা হবে। এ সময় বক্তরা বলেন বর্তমান সরকার এ স্বনির্ভর করেছেন। ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত করার জন্য গরীব ও প্রান্তিক জনগোষ্টির মাঝে ১০টাকায় কেজি চাল বিতরন করছে সারা দেশে। এটি জননেত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে সম্ভব হয়েছে। বাংলাদেশ খাদ্য রপ্তানি দেশে পরিনত হয়েছে। ৭৫এর ১৫আগষ্ট কালো রাত্রির ১৫দিন আগে বঙ্গবন্ধুর কন্যা আজকের প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা বিদেশ গিয়েছিলেন। ভাগ্যক্রমে তিনি বেচে যান। আজ তার কারনে সাধারন মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন সাধিত হয়েছে। আ’লীগ নির্বাচনী ইশতেহারে ঘোষনা দিয়েছেন ক্ষমতায় গেলে দেশের মানুষকে না খেয়ে মরতে হবেনা। ১০টাকায় চাল পাবে। সেটির বাস্তব প্রতিফলিত হয়েছে। প্রধান মন্ত্রী কথার বরখেলাপ করেননা। এটি তার উৎকৃষ্ট উদাহারন। সারা দেশে ৬০লাখ মানুষকে এ কর্মসুচির আওতায় আনা হয়েছে। এটি সরকারের বিশাল সফলতা। শেখ হাসিনার বাংলাদেশ ক্ষুধা হবে নিরুদ্দেশ এ প্রতিপাদ্য নিয়ে খাদ্য ঝুকি হ্রাস করতে দারিদ্র জনগোষ্টির ক্ষুধা নিবরন করতে সরকার অত্যন্ত আন্তরিকভাবে এ সফল কর্মসুচি বাস্তবায়নে পদক্ষেপ নিয়েছে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ইউপি সদস্য আহসান হাবিব, সাইফুল হক, রাহেলা মর্তুজা, আ’লীগ নেতা আবু তৈয়ব, শহর আলী, জসিম উদ্দিন, মোস্তাক আহমদ, ইদ্রিস, প্রজন্মলীগ নেতা কাইয়ুম রেজা প্রমুখ।