সার্টিফিকেট জালিয়তির মাধ্যমে সরকারি চাকুরী নেয়ার অভিযোগে দুদকের মামলায় চকরিয়া উপজেলা সাব রেজিস্টার গ্রেফতার

Chakaria-Picture-21-09-2016.jpg

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া |
সার্টিফিকেট জালিয়তির মাধ্যমে সরকারি চাকুরী নেয়ার অভিযোগে দুদকের মামলায় চকরিয়া উপজেলা সাব রেজিস্টার পরিতোষ কুমার দাসকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে অতিরিক্ত দায়িত্বপ্রাপ্ত উপজেলা পেকুয়া সাব রেজিস্টার কার্যালয় থেকে থানা পুলিশের সহায়তায় তাকে গ্রেফতার করেন দুদক চট্টগ্রাম সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের উপসহকারি পরিচালক আহমেদ ফরহাদ হোসেনের নেতৃত্বে একটি টিম।
অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত করে দূর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) উপসহকারি পরিচালক আহমেদ ফরহাদ হোসেন বলেন, অভিযুক্ত পরিতোষ কুমার দাস ১৯৮৫ সালের ২৭ মে মুজিব নগরী কর্মচারী হিসেবে সাব রেজিস্টার পদে মনোনীত হন। তিনি এইচএসসি পাস হলেও সার্টিফিকেট দাখিল করেছেন এমএসসি পাসের। ভুয়া তথ্য ও জাল সার্টিফিকেট দিয়ে সরকারি চাকুরী করার অভিযোগে গতকাল তার বিরুদ্ধে ঢাকার শাহবাগ থানায় একটি মামলা রুজু করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, পরিতোষ চাকরিতে যোগদান করেছেন ২০০৯ সালের ৯ সেপ্টেম্বর। তখন থেকে ২০১৫ সালে ৩০ জুন পর্যন্ত ৩০বছর ধরে সরকারি কোষাগার থেকে বেতন ও ভাতাদি বাবদ ১১ লাখ ১২ হাজার ৬৩৬ টাকা অবৈধভাবে গ্রহণ করে শাস্তিযোগ্য অপরাধ করেছেন।
পেকুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিয়া মোহাম্মদ মোস্তাফিজ ভুইয় বলেন, দুদকের কর্মকর্তারা থানা পুলিশের সহযোগিতায় পেকুয়া সাব রেজিস্টার কার্যালয় থেকে চকরিয়া উপজেলা সাব রেজিস্টার পরিতোষ কুমার দাসকে গ্রেপ্তার করেন। এদিন বিকালে তাকে চকরিয়া সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোর্পদ করেছে দুদক।
চকরিয়া উপজেলা সিনিয়র জুড়িসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের (জিআরও) এএসআই রিংকন চৌধুরী বলেন, দুদক কর্মকর্তারা গ্রেফতারকৃত সাব রেজিষ্ট্রারকে আদালতে সৌর্পদ করার পর এদিন সন্ধ্যার দিকে আদালত মামলার প্রাথমিক শুনানী করেন। পরে শুনানী শেষে আদালতের বিচারক মো.মাহমুদুল করিম গ্রেফতারকৃত সাব রেজিষ্ট্রার পরিতোষ কুমার দাসকে কক্সবাজার জেলা কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। তিনি বলেন, আদালতের নির্দেশে তাকে রাতেই কারাগারে পাঠানো হয়েছে।