Wednesday, January 19, 2022
Homeটেকনাফহোয়াইক্যংয়ে টমটম গাড়ি থেকে বেপরোয় চাঁদাবাজি : চাঁদা না পেয়ে মারধরের অভিযোগ

হোয়াইক্যংয়ে টমটম গাড়ি থেকে বেপরোয় চাঁদাবাজি : চাঁদা না পেয়ে মারধরের অভিযোগ

জাহাঙ্গীর আলম টেকনাফ।
টেকনাফের হোয়াইক্যং বাজারে টমটম গাড়ি থেকে এক শ্রেনীর সুবিধাভোগী লোকজন প্রতিনিয়ত চাঁদা আদায় করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে বলে অভিযোগ রয়েছে।এসব চাঁদাবাজি চালাচ্ছে স্থানীয় হোয়াইক্যংয়ের সিএনজি,মাহিন্দ্র নামে সমবায় সমিতির লোকজন।সংগঠন নামে চাঁদাবাজির মুল নেতৃত্ব রয়েছেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসেম।এসব চাঁদাবাজি নিয়ে উভয়ের মধ্যে মারামারীর ঘটনাও হয়েছে,টমটম গাড়ি থেকে প্রতিদিন প্রতি গাড়ি থেকে চাঁদার টাকা আদায় করে এবং না দিলে ড্রাইভার কে শারীরিক ভাবে লাঞ্চিত করে এবং হয়রানি হচ্ছে সাধারণ যাত্রীগন।সরেজমিনে দেখা গেছে,উক্ত সংগঠনের নাম দিয়ে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসেম কে দেখা যায় গাড়ি এসে হোয়াইক্যং বাজারে থামলেই প্রতি টমটম গাড়ি থেকে টাকা আদায় করে নিচ্ছে এবং টমটম গাড়ি ড্রাইভার তার কাছ থেকে কিসের টাকা জানতে চাইলে রোডে বা হোয়াইক্যং বাজারে গাড়ি থামালে বা যাত্রী নিলে আমাদের টাকা দিতে হবে নাহলে গাড়ি চালাতে পারবেনা।এই নিয়ে বড় ধরনের সংর্ঘষের হওয়া আংশকা দেখা যাচ্ছে।
স্থানীদের মতামত,সরকারী রাস্তা থেকে সমিতির নাম দিয়ে প্রতি গাড়ি থেকে প্রতিনিয়ত টাকা আদায় এটি অন্যায় ও যুক্তি সম্মত নয়।

হোয়াইক্যং টমটম ইজিবাইক সমবায় সমিতির সভাপতি আব্দুসালাম ও সাধারণ সম্পাদক,মোঃ ইসমাঈল বলেন,প্রতিনিয়ত আমাদের টমটম গাড়ির ড্রাইভার ভাইরা তাদের হাতে হয়রানি ও মারধরে শিকার হচ্ছে, কারণ সরকারে রোডে গাড়ি চালাতে হলে তাদের নাকি প্রতি গাড়ি থেকে টাকা দিতে হবে না হলে হোয়াইক্যং বাজারে গাড়ি চালানো যাবে না বলে হুমকি দমকি দেয়। উক্ত সিএনজি ও মাহিন্দ্রা সমিতির লোকজন জোর পুর্বক ভাবে এসব অন্যনায় করে যাচ্ছে আমাদের প্রতি। তার মধ্যে ঐ সমিতির সাধারণ সম্পাদক সব ঘটনার মুল নিজের সার্থ হাসিল করা জন্য এসব অর্পকমর দিন দিন বাড়িয়ে যাচ্ছে। তবে আরো জানা যায় উক্ত সমিতির লোকজন গাড়ি থেকে উত্তোলনকৃত কোন টাকা পয়সা সরকারে কোন খাতে দেই না তারা নিজেরা ভাগবাটোয়া করে পেলে।হোয়াইক্যং টমটম ইজিবাইক সমবায় সমিতির লোকজন দাবি করেন,এসব অন্যনায় ও হয়রানি বন্ধের দাবী জানান।#####

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments