খারাংখালীতে চাঁদা দাবী ও মার্কেট দখল সংক্রান্ত সংবাদের তীব্র প্রতিবাদ

: হুমায়ুন রশিদ
প্রকাশ: ২ years ago

বার্তা পরিবেশক : ২১সেপ্টেম্বর কক্সবাজার ও টেকনাফ থেকে প্রকাশিত স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম, বিভিন্ন অনলাইন ও পেইজে প্রকাশিত “খারাংখালীতে চাঁদা দিতে না পারায় মার্কেট দখলে নিতে মরিয়া সন্ত্রাসী খালেক” শীর্ষক সংবাদটি আমার দৃষ্টিগোচর হয়েছে। যা ্আদালতের বিচারাধীন বিষয় অমান্য করে এলাকার চিহ্নিত মাদক কারবারী ও ভূমিদস্যু শামসুল আমিনের সাজানো চক্রান্ত ছাড়া কিছুই না। এই মাদক কারবারী গং ২০১৯সালে মাদকের টাকায় দালালের সহযোগিতায় ওসি প্রদীপের সাথে আতাঁত করে ২টি ক্রসফায়ার মামলায় আসামী করে আমাকে।

আমি আপনাদের সদয় অবগতির জন্য জানাচ্ছি যে,মধ্যম হ্নীলা মৌজা বিএস খতিয়ান নং ৬৮৫খতিয়ানের রের্কডীয় মালিক ইসলাম মিয়া ও জকির আহমদ হতে বিগত ১৫/০২/১৯৯০ সনে মৃত আতর আলির পুত্র অলি আহমদ ভাড়াটিয়া হিসেবে একটি চায়ের দোকান করে আসছে। বিগত ৩১/০৭/৮৩ সনে ৩০৩৭নং কবলামূলে জমির মালিক উলা মিয়া তার ভাই জানে আলীকে জমি বিক্রি করে। উক্ত জমি জানে আলী নামজারি না করার সুযোগে উলা মিয়ার মৃত্যুর পর তার ওয়ারিশরা বিক্রিত জমি পূনরায় খায়রুল আমিনকে বিক্রি করে খায়রুল ও শামসুল আমিনের নামে দলিল করে। উক্ত দলিলে বিরুদ্ধে ১৩/০৮/২০১৫ সনে জানে আলীর পুত্র কালা মিয়া বাদী হয়ে খায়রুল আমিন গংকে আসামী করে আদালতে অপর ৯৪ মামলা দায়ের করে। উক্ত মামলা এখনো আদালতে চলমান রয়েছে।

এদিকে জকির আহমদ গং হতে বিএস ৬৮৫খতিয়ানের বিএস ১০৫০৩দাগের ২কড়া জমি রেজিঃ দিবে বলে খালেক হোসেন গংয়ের সাথে ০৮/০৪/২০১৭ইং তারিখে একটি চুক্তি হয়। উক্ত চুক্তি মূলে সেই থেকে অদ্ধবদি উক্ত ২কড়া জমির উপর খালেকের দোকান রয়েছে। দীর্ঘ ৫বছর পর গত ১০সেপ্টেম্বর উক্ত ২কড়া জমিসহ দোকান জোরপূর্বক শামসুল আমিন গং দখল করতে আসলে দোকানের মালিক আমি খালেক বাঁধা দিই। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে শামসুল আমিন গং দোকানের মালিক খালেক তাদের কাছ থেকে চাঁদা দাবী করেছে মর্মে সংবাদকর্মীদের ডেকে এনে অপপ্রচার চালাচ্ছে। যা একেবারে বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত।

উক্ত মাদক কারবারী গডফাদার তার মৃত ভাইয়ের ছেলে-মেয়েদের ব্যবহার করে সহানুভূতি আদায় করার অপকৌশলের আশ্রয় নিয়েছে। আমি এই ধরনের বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত সংবাদের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে কাউকে বিভ্রান্ত না হওয়ার আহবান জানাচ্ছি।

প্রতিবাদকারী :
মোঃ খালেক হোসেন
পিতা-মৃত গোলাম হোসেন
সাং-নাছরপাড়া, খারাংখালী, হোয়াইক্যং, টেকনাফ। ###