এসিস্ট্যান্স কার্ড প্রদানের প্রতিবাদে ১০ দিন ধরে রেশন নিচ্ছেন না নয়াপাড়া ক্যাম্পের রেজিষ্ট্রার্ড রোহিঙ্গারা

: নুরুল করিম রাসেল
প্রকাশ: ৬ years ago

নুরুল করিম রাসেল :
টেকনাফের নয়াপাড়া শরণার্থী ক্যাম্পের রেজিস্ট্রার্ড রোহিঙ্গারা ধর্মঘট পালন করছেন । ১০ নভেম্বর শনিবার ক্যাম্পের দোকান পাট, স্কুল বন্ধ রাখার পাশাপাশি বিভিন্ন এনজিওতে কর্মরত রোহিঙ্গারা কর্মবিরতি পালন করেছেন। জানা গেছে ৫ দফা দাবীতে এই ক্যাম্পের রেজিষ্টার্ড রোহিঙ্গারা ধর্মঘট শুরু করেছেন। এছাড়া গত ১ নভেম্বর হতে এখানকার রোহিঙ্গারা রেশন গ্রহন করেননি।

নয়াপাড়া শরণার্থী ক্যাম্পের রোহিঙ্গাদের চেয়ারম্যান আব্দুল নবী জানান, গত ১ নভেম্বর হতে ক্যাম্পের কোন রোহিঙ্গা পরিবার ত্রাণ সামগ্রী উত্তোলন করেননি। শনিবার হতে ক্যাম্পের রোহিঙ্গারা স্বেচ্ছায় দোকান পাট ও স্কুল বন্ধ রেখেছেন। এছাড়া যারা চাকুরীতে রয়েছেন তারা স্বেচ্ছায় কর্মবিরতি পালন করেছেন।

সাবেক রোহিঙ্গা নেতা সৈয়দুল্লাহ জানান, রেজিস্টার্ড ক্যাম্পের রোহিঙ্গাদের মাঝে শরণার্থী আইডি কার্ড ও ত্রাণের জন্য ফুড কার্ড চালু রয়েছে। কিন্তু সম্প্রতি ডাব্লিওএফপি ফুড কার্ড পরিবর্তন করে নতুন আসা রোহিঙ্গাদের মতো এসিস্ট্যান্স কার্ড চালু করেছে। যা রেজিস্ট্রার্ড রোহিঙ্গাদের জন্য অপমানজনক বলে জানান তিনি। পুরাতন ফুড কার্ড চালু রাখা, শিক্ষার কারিকুলাম তৈরীসহ ৫ দফা দাবীতে ক্যাম্পের রোহিঙ্গারা রেশন বর্জন সহ ধর্মঘট শুরু করেছেন।

এব্যাপারে নয়াপাড়া ক্যাম্প ইনচার্জ আরিফুজ্জামানের সাথে মুঠোফোনে কথা হলেও ঢাকায় রয়েছেন বলে বক্তব্য দিতে অপারগতা প্রকাশ করে ডেপুটি ক্যাম্প ইনচার্জ এর সাথে কথা বলতে বলেন। কিন্তু ডেপুটি ক্যাম্প ইনচার্জ আব্দুল হান্নান এর নাম্বারে বারবার কল করা হলেও ফোন রিসিভ না করায় বক্তব্য জানা যায়নি।