চকরিয়ায় এমপি প্রার্থী জাফর আলম- আধুনিক চকরিয়া-পেকুয়া গড়তে নৌকার পক্ষে জনগণ ভুমিকা রাখবে

-4.jpg

এম.জিয়াবুল হক : আগামী ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চকরিয়া-পেকুয়া (কক্সবাজার-১) আসনে জননেত্রী শেখ হাসিনা তথা আওয়ামীলীগ (মহাজোট) মনোনীত সংসদ সদস্য প্রার্থী চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সদ্য সাবেক উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ জাফর আলম গতকালও চকরিয়া উপজেলা এবং পৌরসভার বিভিন্ন জনপদে জনগনের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেছেন। এসময় তিনি একাধিক উঠান বৈঠকে নৌকার পক্ষে জনমত গড়ে তুলতে সাধারণ জনগন ছাড়াও আওয়ামীলীগ এবং সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় ও প্রতিনিধি সভায় অংশগ্রহন করেছেন।
দলের প্রতিনিধি সভা ও জনগনের সঙ্গে কুশল বিনিময়কালে সংসদ সদস্য প্রার্থী আলহাজ জাফর আলম চকরিয়া-পেকুয়া উপজেলার সার্বিক উন্নয়নে জননেত্রী শেখ হাসিনা তথা আওয়ামীলীগের উন্নয়নের প্রতীক নৌকাকে বিজয়ী করার জন্য আহবান জানান। ি আলহাজ জাফর আলম বলেন, বাংলাদেশের অগ্রগতিতে শেখ হাসিনার সফল নেতৃত্বে বর্তমান সরকারের কোন বিকল্প নেই। কারণ শেখ হাসিনার সুদক্ষ নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ বিশে^র সামনে উন্নতশীল দেশের কাতারে। ধারাবাহিক উন্নয়নের কারনে চকরিয়া-পেকুয়া আসনে নৌকার পক্ষে জনগনের মাঝে গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে।
তিনি বলেন, দেশের অগ্রগতি উন্নয়নে সাথে চকরিয়া-পেকুয়াবাসির এগিয়ে যেতে হবে। সেইজন্য একাদশ নির্বাচনে আওয়ামীলীগ তথা জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের প্রতীক নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে। আমি চাই উন্নয়নে ভরপুর নতুন দিনের আধুনিক চকরিয়া-পেকুয়া বির্নিমানে নৌকার পক্ষে পাড়ায় পাড়ায় গণজেয়ার সৃষ্ঠিতে মমতাময়ী নারী শ্রেণীসহ সমাজের সকল শ্রেণীর মানুষ ভুমিকা রাখবে। সবাই ভেদাভেদ ভুলে কাজ করলে ইনশাল্লাহ ৩০ ডিসেম্বর চকরিয়া-পেকুয়া আসনে বিপুল ভোটে নৌকার বিজয় সুনিশ্চিত। জনগন ব্যালট বিপ্লবের মাধ্যমে উন্নয়নের পক্ষে রায় দিতে অবিচল রয়েছে।
কুশল বিনিময়কালে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক মো.নুরুল আবছার, চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ফাসিয়াখালী ইউপি চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী, জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য আমিনুর রশিদ দুলাল, চকরিয়া পৌরসভার মেয়র আলমগীর চৌধুরী, মাতামুহুরী আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি চকরিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর বুলবুল, সাধারণ সম্পাদক ও সাহারবিলের চেয়ারম্যান মহসিন বাবুল, সহ-সভাপতি মকছুদুল হক ছুট্টো, পেকুয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম, চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম লিটু, সাধারণ সম্পাদক আতিক উদ্দিন চৌধুরী, চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মোক্তার আহমদ চৌধুরী, আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী, এমআর চৌধুরী, ছৈয়দ আলম কমিশনার, চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শওকত ওসমান চেয়ারম্যান, আওয়ামীলীগ নেতা আমিনুল করিম, চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি তপন কান্তি দাশ, সহ-সভাপতি অধ্যাপক মোসলেহ উদ্দিন মানিক, চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক রতন কুমার সুশীল, ফেরদৌস ওয়াহিদ, সেলিম উদ্দিন লিটন, কাউন্সিলর রেজাউল করিম, সাংগঠনিক সম্পাদক মুজিবুর রহমান লিটন, নজরুল ইসলাম রাসেল, আওয়ামীলীগ নেতা মিফতাব উদ্দিন চৌধুরী, পৌরসভা কুষকলীগের সভাপতি সুলাল কান্তি সুশীল, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শহীদুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক কাউছার উদ্দিন কছির, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শওকত হোসেন, সাধারণ সম্পাদক বাবলা দেবনাথ, চকরিয়া উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি জামাল উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক সাইফ উদ্দিন মামুন, চকরিয়া পৌরসভা যুবলীগের সভাপতি হাসানগীর হোছাইন, সাধারণ সম্পাদক আজিজুল ইসলাম সোহেল, চকরিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আলহাজ হায়দার আলী, সাবেক সভাপতি শেফায়েতুল কবির চৌধুরী বাপ্পী, সাবেক সম্পাদক সাজিদ হোসেন শাকিব, সাদ্দাম হোসেন মিঠু, চকরিয়া পৌরসভা কুষকলীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল্লাহ আল ফারুক লোটাস, চকরিয়া পৌরসভা শ্রমিকলীগের সভাপতি জহিরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন ধুলু, চকরিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোহাম্মদ মারুফ, সাধারণ সম্পাদক রুবেল মাহমুদ, চকরিয়া পৌরসভা ছাত্রলীগের সভাপতি মিজানুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক সোহেল রানা পারভেজ ও ছাত্রনেতা আবদুল বারেক টিপু প্রমুখ। ##

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top