সাবেক সাংসদ অধ্যাপক মোহাম্মদ আলীর সাথে হ্নীলা বাজার ইজারাদার ও ব্যবসায়ীদের মতবিনিময়

Teknaf-Pic-C-05-12-18.jpg

নিজস্ব প্রতিবেদক : হ্নীলা বাজারের ইজারাদার ও ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা সাবেক সাংসদ আলহাজ¦ অধ্যাপক মোহাম্মদ আলীর সাথে সৌজন্য স্বাক্ষাত ও মতবিনিময় করেছেন।
জানা যায়, ৫ ডিসেম্বর বাদে মাগরিব হ্নীলা দরগাহ ষ্টেশনের নাফ ফিলিং ষ্টেশনে সাবেক সাংসদের অস্থায়ী কার্যালয়ে এক সৌজন্য স্বাক্ষাত ও মতবিনিময় সভায় মিলিত হয়। ইজারাদার ও ব্যবসায়ীরা ফুলের তোড়া দিয়ে সাবেক সাংসদকে শুভেচ্ছা জানান। এসময় ইজারাদার জালাল উদ্দিন, আওয়ামী লীগ নেতা রশিদ আহমদ, ব্যবসায়ী আব্দুর রহমান, নুরুল আলম, রফিক, জসিম, আব্দুল্লাহ, ফকির আহমদ, মানিক, আসমত উল্লাহ, নুরুল আমিন, শামসুল আলম, সোনা মিয়া, ওসমান, আব্দুল হামিদ, আব্দুল জাব্বার, শামসুল আলম, মোশারফ, আব্দুল্লাহ, জাকের, আবু তাহের, জামাল, মোঃ নুর, বেলাল, নুর কবির, নুরুল আলম, ফায়সাল, মোক্তার, আশ্রাফ আলী, মোহাম্মদ ইসমাঈল, ঈমাম হোসেন, মোক্তার আহমদ, শামসুল আলম, দেলোয়ার, আবু ছৈয়দ, আবু ছিদ্দিক উপস্থিত ছিলেন। এতে ইজারাদার এবং ব্যবসায়ীরা অভিযোগ তুলে জানান, হ্নীলা ষ্টেশনে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে অবৈধ স্থাপনা ও পার্কিং গুড়িয়ে দেওয়া হয়। যানবাহনের জন্য ষ্টেশনের দক্ষিণ ও উত্তর পাশর্^ ব্যবহার করে মধ্যখানে সড়কের নির্দিষ্ট নিরাপদ দূরত্বে থাকা স্থানে ছাউনিবিহীন অস্থায়ী তরিতরকারীর বাজার করার নির্দেশনা প্রদান করেন। কিন্তু হ্নীলা ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ¦ এইচকে আনোয়ারের মদদপুষ্ট একটি চক্র এই নির্দেশনার তোয়াক্কা না করে অবৈধভাবে মাইক্রোবাস, চান্দেঁর গাড়ি, সিএনজি, মাহিন্দ্রারা, টমটম, অটোরিক্সা বসিয়ে চাঁদা আদায় করায় ইজারা আদায় টাকা আয় করে পকেট ভারী করছে অভিযোগ করেন। এরফলে ইজারা আদায় ব্যাহত হওয়ার পাশাপাশি সাধারণ তরকারী ও ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা বেকার হয়ে পড়ছে। সাবেক সাংসদ এই ব্যাপারে টেকনাফ উপজেলা প্রশাসনের সহায়তা ও হস্তক্ষেপ গ্রহণের নির্দেশনা প্রদান করেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top