নওগাঁয় বাড়িতে আওয়ামী লীগ নেতাকে কুপিয়ে খুন

image-170456-1543946902.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক : নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক পৌর মেয়র ইছাহাক হোসেন (৭০) দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার রাত পৌনে ১০টার দিকে তার নিজ বাড়ির দরজার সামনে এ ঘটনা ঘটে।

এ সময় ইছাহাক হোসেনের গাড়িচালক দুলাল রায় আহত হয়েছেন। তিনি বর্তমানে পত্নীতলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। নিহত ইছাহাক হোসেন পত্নীতলা উপজেলার নজিপুর ইউনিয়নের মামুদপুর গ্রামের বাসিন্দা।

পত্নীতলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মবর্তা (ওসি) পরিমল চক্রবর্তী জানান, প্রতিদিনের মতো মঙ্গলবার রাতে দলীয় কার্যালয় থেকে কাজ শেষ করে বাসার উদ্দ্যেশ্যে বের হন ইছাহাক। গাড়ি থেকে নেমে বাসার গেটে প্রবেশ করার সময় আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা চার থেকে পাঁচ জনের একটি দল সংঘবদ্ধভাবে তার ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে ছুরিকাঘাত করতে থাকে। এ সময় তার চিৎকারে চালক দুলাল গাড়ি থেকে নেমে এলে তাকেও ছুরিকাঘাত করা হয়। দুলালের চিৎকারে গ্রামবাসীরা এসে আহত দুজনকে পত্নীতলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক ইছাহাক হোসেনকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ বিষয়ে পত্নীতলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার দেবাসিস রায় বলেন, ‘গ্রামবাসীরা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ইছাহাক হোসেন ও তার ড্রাইভার দুলাল রায়কে হাসপাতালে নিয়ে আসার পথিমধ্যেই ইছাহাক হোসেন মারা যায়। আর ড্রাইভার দুলাল রায় বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে। নিহত ইছাহাক হোসেনের মাথায়, বুকে ও গায়েসহ বেশ কিছু স্থানে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে।’

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top