সোনাদিয়া প্যারাবনে বন্দুকযুদ্ধে জলদস্যু নিহত

las.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক :
মহেশখালীর সোনাদিয়া প্যারাবনে কথিত বন্দুকযুদ্ধে অাবুল হাসান মানিক (৩০) নামে একজন নিহত হয়েছে। র‍্যাবের দাবী মতে, সে চিহ্নিত জলদস্যু।
সোমবার (১৯ নভেম্বর) ভোরে র‍্যাবের সাথে জলদস্যুদের বন্দুকযুদ্ধের ঘটনায় সে মারা যায় বলে জানা গেছে।
এসময় ঘটনাস্থল থেকে ২টি দেশীয় তৈরী বন্দুক, ৮ রাউন্ড তাজা কার্তুজ ও ৬টি গুলির খোসা উদ্ধার করা হয় বলে র‍্যাব জানিয়েছে।
নিহত অাবুল হাসান মানিক কুতুদিয়া উপজেলার করলা পাড়া গ্রামের লেদু মিয়ার ছেলে।
র‍্যাব ও থানা সুত্রে জানা গেছে, সোনাদিয়া দ্বীপে একদল জলদস্যু সাগরে দস্যুতার জন্য প্রস্তুতি নেয়ার খবরে অভিযান চালানো হয়।
জলদস্যুরা র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছুটতে ছুটতে গহীন প্যারাবনের দিকে চলে যায়।
র‍্যাবও আত্নরক্ষার্থ পাল্টা গুলি চালালে দস্যু অাবুল হাসান মানিক ঘটনাস্থলে গুলি লেগে আহত অবস্থায় পড়ে থাকে।
ঘটনাস্থল থেকে র‍্যাব ২টি দেশীয় তৈরী বন্দুক, ৮টি তাজা কার্তুজ ও ৬টি গুলির খোসাসহ আহত মানিককে উদ্ধার করে মহেশখালী হাসপাতালে নিয়ে গেলে সকাল সোয়া ৮টার দিকে মারা যায়।
মহেশখালী থানার ওসি প্রভাষ চন্দ্র ধর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, থানার এস,আই পংকজ লাশের সুরত হাল রির্পোট তৈরী শেষে লাশ ময়না তদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top