লিটনের ডাবল সেঞ্চুরির রেকর্ড

tuhin-10-10-18-08.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক : জাতীয় লিগের ম্যাচে বুধবার রাজশাহীতে রংপুরের হয়ে রাজশাহীর বিপক্ষে ম্যাচের দ্বিতীয় ইনিংসে ১৪০ বলে ডাবল সেঞ্চুরি করেছেন লিটন।

মাইলফলকে পৌঁছেছেন রাজকীয় ঢঙে। ১৮৪ থেকে মহর শেখকে টানা দুটি বাউন্ডারিতে ১৯২। ১৯৩ থেকে তাইজুল ইসলামকে ছক্কায় ১৯৯। পরে বলেই বাউন্ডারিতে রেকর্ড গড়া ডাবল। এক বল পরই তাইজুলের বলে আউট হয়েছেন ১৪২ বলে ২০৩ রান করে।

গত ২৬ এপ্রিল বিসিএলে পূর্বাঞ্চলের হয়ে মধ্যাঞ্চলের বিপক্ষে ২৭৪ রানের ক্যারিয়ার সেরা ইনিংসের পথে লিটন দুইশ স্পর্শ করেছিলেন ১৯০ বলে। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে বাংলাদেশের কোনো ব্যাটসম্যানের দুইশ বলের নিচে ডাবল সেঞ্চুরির একমাত্র কীর্তি ছিল সেটিই।

লিটন তখন পেছনে ফেলেছিলেন মোসাদ্দেক হোসেনকে। ২০১৪-১৫ মৌসুমে জাতীয় লিগে বরিশালের হয়ে মোসাদ্দেক ডাবল সেঞ্চুরি করেছিলেন ২২৯ বলে। লিটন যে ম্যাচে ১৯০ বলে দুইশ ছুঁয়েছিলেন, সেই ম্যাচেই ২৩০ বলে ডাবল সেঞ্চুরি করা আব্দুল মজিদ আছেন তালিকার চারে।

ফরহাদ রেজার করা ইনিংসের প্রথম ওভারে দুটি বাউন্ডারিতে শুরু করেছিলেন লিটন। এরপর কচুকাটা করেছেন সব বোলারকে। ৪৪ বলে ছুঁয়েছিলেন ফিফটি, ৮১ বলে করেছেন প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ত্রয়োদশ সেঞ্চুরি। দেড়শ করেছেন ১০৮ বল খেলে। সেখান থেকে পরের ৩২ বলে দুইশতে।

প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে দ্রুততম ডাবল সেঞ্চুরির বিশ্ব রেকর্ডটিও হয়েছে গত এপ্রিলেই। আফগানিস্তানের ঘরোয়া চার দিনের ম্যাচে বুস্ট অঞ্চলের বিপক্ষে ৮৯ বলে ২০০ করেছিলেন কাবুল অঞ্চলের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান শফিকউল্লাহ শাফাক।

শফিকউল্লাহ ভেঙেছিলেন রবি শাস্ত্রি ও অ্যানায়রিন ডোনাল্ডের যৌথ রেকর্ড। ১৯৮৪-৮৫ মৌসুমে বোম্বের হয়ে বরোদার বিপক্ষে ১২৩ বলে ডাবল সেঞ্চুরির রেকর্ড করেছিলেন শাস্ত্রি। আর ২০১৬ সালের জুলাইয়ে গ্ল্যামরগ্যানের হয়ে ডার্বিশায়ারের বিপক্ষে শাস্ত্রির রেকর্ড স্পর্শ করেছিলেন ১৯ বছর বয়সী ডোনাল্ড।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top