ফুল ও বাগান উৎসব চলছে সৌদি আরবে

mail.jpg

টেকনাফ টুডে ডেস্ক : সৌদি আরবে ১২ বছর যাবত আয়োজন করা হচ্ছে মাসব্যাপী ‘ফুল এবং বাগান উৎসব’। ২০১৪ সালে বিশ্বের সর্ববৃহৎ ফুলের গালিচা হিসাবে গ্রিনিজ বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে স্থান করে নেয় এ উৎসব। ফুল এবং এর উৎপাদন আর পরিচর্চা কিভাবে করতে হয়ে এসব জানাতে সৌদি রয়েল কমিশনের ল্যান্ডস্ক্যাপ অ্যান্ড ইরিগেশন বিভাগ এ উৎসবের আয়োজন করে প্রতিবছর।
চলতি বছর ১ মার্চ শুরু হওয়া এই উৎসব চলবে ২৫ মার্চ পর্যন্ত। প্রচণ্ড শীত ও গরম- এ দুই ঋতুর দেশ সৌদি আরবের এই আয়োজন দেখতে প্রতিদিনই ভীড় করছেন হাজার হাজার দর্শনার্থী। আর তাদের এই ঘুরতে আসাকে নির্বিঘ্ন করতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে নেয়া হয়েছে নানা ব্যবস্থা। প্রতিদিন বিকাল ৪টা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত বিনা মূল্যে হাজার ফুল আর বৃক্ষের সঙ্গে পরিচিত হতে পারছেন দর্শনার্থীরা।
উৎসবে ফুড কোর্ট, শিশু পার্ক, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান যোগ করেছে নতুন মাত্রা। রয়েছে সুবিশাল কার পার্ক আর সবুজ মাঠ। নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে দেয়া হয়েছে পুরো উৎসব প্রাঙ্গনকে। কথা হয় বেশ কয়েকজন প্রবাসী বাংলাদেশিদের সঙ্গে। তারা জানান, সৌদি আরবে এমন আয়োজন হতে পারে এটা না দেখলে কেউ বিশ্বাস করবে না।
একজন তো আনমনে বলেই ফেললেন, মন চায় বার বার ফিরে আসি স্বর্গের প্রতীক এই ফুলের কাছে।
শুধু দর্শনার্থী নয় বিক্রেতা হিসাবেও এখানে রয়েছেন অনেক বাংলাদেশি। তেমনি একজন সেলিম উদ্দিন। তিনি জানান, প্রতি বছরই এই আয়োজনে অংশ নিই। এবার জায়গার ভাড়া বেশি। তাই অনেক নার্সারি মালিকই অংশ নেননি। তাঁরপরেও বেচা-বিক্রি মন্দ নয়।
সন্ধ্যার পর উৎসবের বিনোদন প্রাঙ্গনে স্থাপিত বিশেষ মঞ্চে শিশু-কিশোরদের মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক পরিবেশনা মুগ্ধ করে দর্শনার্থীদের।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top