রোহিঙ্গা বস্তি পরিদর্শনে কাঁদলেন; নায়েবে আমীর মুফতী ফয়জুল করীম

2017-09-11_17.18.32.jpg

ইকবাল আজিজ, টেকনাফ ::
নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের ত্রাণ বিতরনের জন্য টেকনাফে নায়েবে আমীর মুফতি ফয়জুল করিম কাসেমী দা: বা:
ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের সংগ্রামী নায়েবে আমীর আল্লামা মুফতি ফয়জুল করিম কাসেমী সাহেব দা: বা: বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গাদের পরিদর্শন ও ত্রাণ বিতরনের জন্য আজ টেকনাফে । পূর্ব ঘোষিত ত্রাণ কর্মসূচির অংশ হিসেবে কক্সবাজার জেলা ও উখিয়া উপজেলা এবং টেকনাফ উপজেলার সমন্বয়ে গঠিত ত্রাণ কমিটির ত্রাণ বিতরনের ১০ম দিনে আজ তিনি তাদের সাথে যোগ দেন।
আগের রাতে চট্টগ্রাম আগ্রাবাদ ছোট পুলে মাহফিল শেষ করে রাতেই রওয়ানা করেন টেকনাফের উদ্দেশ্যে। তিনি টেকনাফের বিভিন্ন স্থানে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা আশ্রিত অস্থায়ী রোহিঙ্গাদের বিভিন্ন ক্যাম্প পরিদর্শন করেন এবং তাদের মাঝে নগদ অর্থ, খাদ্য দ্রব্য সহ বিভিন্ন প্রকারের ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন ।
ত্রাণ কমিটিকে তাদের ত্রাণ কার্যক্রম অব্যাহত রাখার নির্দেশ দেন । বিশুদ্ধ ও নিরাপদ পানির জন্য বিভিন্ন স্থানে নলকূপ স্থাপনের নির্দেশ দেন। দেশে ও দেশের বাহিরের সকল মানবতাবাদী ধনাঢ্য শ্রেণীকে নির্বাসিত রোহিঙ্গা মুসলিমদের সাহায্যে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান ।
পরে এক সংক্ষিপ্ত ব্রিফিংয়ে তিনি সরকারের উদ্দেশ্যে বলেন; মাননীয় প্রধানমন্ত্রী প্রতিবেশী রাষ্ট্র হিসেবে রোহিঙ্গাদের সমস্যা সামাধান আপনাকেই করতে হবে। আজ আরাকানে মানবতার অপমৃত্যু ঘটছে। বিশ্ব নেতাদের সাথে আলোচনা করে মায়ানমারের মুসলিম গণহত্যার বিরোদ্ধে জনমত গড়ে তুলোন। নির্বাসিত ও নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলিমদেরকে তাদের মাতৃভূমি আরাকানে ফিরিয়ে নেওয়ার ব্যবস্থা করুন।
এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় কৃষি ও শ্রম বিষয়ক সম্পাদক ও চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি আলহাজ জান্নাতুল ইসলাম, ত্রাণ কমিটির প্রধান সমন্বয়ক, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় নেতা মুফতি দেলোয়ার হোসাইন সাকি, ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় প্রকাশনা সম্পাদক এইচ এম কাওছার আহমদ ও কেন্দ্রীয় ছাত্র কল্যাণ সম্পাদক মুহাম্মদ শরীফুল ইসলাম, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ কক্সবাজার জেলার সভাপতি বরেণ্য আলেমে দ্বীন মাওলানা মুহাম্মদ আলী, জেলা সেক্রেটারি ও ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মনোনীত কক্সবাজার ৪ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনে শান্তির প্রতিক হাতপাখার প্রার্থী মাওলানা মুহাম্মদ শোয়াইব,জয়েন্ট সেক্রেটারি মাওলানা ফরিদুল আলম,বামুক জেলা সেক্রেটারি মুহাম্মদ বদিউল আলম, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ টেকনাফ উপজেলার সংগ্রামী সভাপতি উস্তাজুল আসাতিজা মাওলানা মুহাম্মদ তৈয়ব আরমান, সহ সভাপতি মাওলানা আব্দুল খালেক নেজামী, জয়েন্ট সেক্রেটারি মাওলানা হাফেজ এনামুল হক মন্জুর, বামুক সাংগঠনিক সম্পাদক, সাবেক ছাত্রনেতা সাংবাদিক জুবায়ের আহমদ, ইশা ছাত্র আন্দোলন কক্সবাজার জেলা সভাপতি মুহাম্মদ আবু বকর ও টেকনাফ উপজেলা সভাপতি মুহাম্মদ আখতার কামাল প্রমূখ।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Top